চট্টগ্রাম রবিবার, ১৫ ডিসেম্বর, ২০১৯

২৩ নভেম্বর, ২০১৯ | ৫:৪৪ পূর্বাহ্ন

চসিকের স্মারক স্তম্ভ ঘিরে নির্মিত অবৈধ দোকান

সৌন্দর্যবর্ধনের নামে দোকান নির্মাণের কবল থেকে রক্ষা পায়নি চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন (চসিক) প্রতিষ্ঠার দেড়শ বছর উদযাপনে নির্মিত স্মারক স্তম্ভও। নগরীর ১৫ নম্বর বাগমনিরাম ওয়ার্ডের এম এম আলী রোডের মুখে সম্প্রতি এই দোকান নির্মাণ করা হয়। চসিকের সাবেক মেয়র মোহাম্মদ মনজুর আলম চট্টগ্রাম পৌরসভার ১৫০ বছর পূর্তি উপলক্ষে ২০১৩ সালের ২১ জুন এই স্মারকস্তম্ভ স্থাপন করেছিলেন। স্মারকস্তম্ভ স্থাপনের আগে ওই জায়গায় বিলবোর্ডের জঞ্জাল ছিল। বিলবোর্ড সরিয়ে তখন এটি স্থাপন করা হয়। এখন সেই বিলবোর্ড ব্যবসায়ীরাই সেখানে দোকান নির্মাণ করেছে।

চসিক সূত্র জানায়, নগরীর ষোলশহর দুই নম্বর গেট হতে জিইসি মোড়, গরীবউল্ল­াহ শাহ মাজার মোড়, লালখানবাজার হয়ে ইস্পাহানী মোড় পর্যন্ত সৌন্দর্যবর্ধনের জন্য দুইটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে পাঁচ বছরের জন্য গত ১ অক্টোবর চুক্তি করে চসিক। প্রতিষ্ঠান দুটি হল এসটিডি ইন্টারন্যাশনাল ও অ্যাড গার্ডেন। এসটিডি ইন্টারন্যাশনাল হচ্ছে নগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাবউদ্দিন চৌধুরীর পুত্র ইশতিয়াক আহমেদ চৌধুরী ওরফে সাজিদের এবং অ্যাড গার্ডেন হচ্ছে নগর যুবলীগ নেতা সনৎ বড়–য়ার।

সরেজমিনে দেখা যায়, স্মারক স্তম্ভ এলাকায় পুরোদমে খাবারের দোকান চালু করা হয়েছে। দোকানের নাম ‘নার্সারি টি এন্ড কফি হাউস’। স্মারক স্তম্ভটির যে রক্ষণাবেক্ষণ করা হয় না তার প্রমাণ সেটি নিজেই দিচ্ছে। এ স্তম্ভের অনেক লেখা খসে পড়েছে। দোকান নির্মাতাদের দাবি চসিকের অনুমোদন নিয়েই তারা এটি নির্মাণ করেছেন।

তবে চসিকের প্রধান নগর পরিকল্পনাবিদ এ কে এম রেজাউল করিম পূর্বকোণকে জানিয়েছেন, সৌন্দর্যবর্ধনের জন্য যে নকশা তৈরি করা হয়েছে, সেখানে এই দোকানের অস্থিত্ব নেই। অবৈধভাবে দোকানটি নির্মাণ করা হয়েছে। দোকানটি উচ্ছেদ করা হবে।

The Post Viewed By: 37 People

সম্পর্কিত পোস্ট