চট্টগ্রাম রবিবার, ১৫ ডিসেম্বর, ২০১৯

১৮ নভেম্বর, ২০১৯ | ২:১৭ পূর্বাহ্ন

হারাধন কর্মকার, রাজস্থলী

রেফার করা রোগীদের চরম দুর্ভোগ

রাজস্থলী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের এম্বুলেন্স ১ মাস ধরে অচল

রাঙামাটি জেলার রাজস্থলী উপজেলার স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে একমাত্র এম্বুলেন্সটি দীর্ঘ একমাস ধরে অচল হয়ে পড়ে আছে। এতে করে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে রেফার করা রোগীগুলোর দুর্ভোগ চরমে। হাসপাতালটির বিরুদ্ধে দীর্ঘদিন ধরে কোন অভিযোগ না থাকলেও গত একমাস ধরে এম্বুলেন্স নিয়ে অভিযোগ উঠেছে।

উপজেলার ঘিলাছড়ি ও গাইন্দ্যা ইউনিয়নের বেশ কয়েকটি পাড়ার দুর্গম এলাকা থেকে রোগীরা চিকিৎসা নিতে আসলে গুরুতর রোগীগুলো রেফার করা হয় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে অথবা চন্দ্রঘোনা বেসরকারি ক্লিনিকে। সেসময়ে দ্রুতগতিতে রোগী পরিবহনে এম্বুলেন্স বিশেষ ভূমিকা রাখে।

অন্য রোগীগুলো সিএনজিতে করে যেতে পারলেও বিশেষ করে গর্ভবতী রোগীগুলোকে রেফার করা হলে চন্দ্রঘোনা থেকে এম্বুলেন্স এনে চমেক হাসপাতাল, নয়তো চন্দ্রঘোনা বেসরকারি ক্লিনিকে চিকিৎসা নিতে হয়। চন্দ্রঘোনা থেকে রাজস্থলী পর্যন্ত ৩২ কিলোমিটার ও চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল প্রায় একশত কিলোমিটার দূরত্ব। উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের এম্বুলেন্সটি অচল হয়ে থাকায় তাই জরুরি ডেলিভারি রোগীদের ক্ষেত্রে সুচিকিৎসা পেতে ৩-৪ ঘণ্টা সময় বেশি লাগছে, এমনটাই মন্তব্য করেছেন হাসপাতালে আসা রোগীদের স্বজনরা।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. রুইহ্লাঅং মারমা বলেন, হাসপাতালের এম্বুলেন্সটি যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে গত একমাস ধরে অচল হয়ে পড়ে আছে। বিষয়টি ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার নিকট চিঠি দিয়ে অবগত করা হয়েছে। এম্বুলেন্সটি সচলের জন্য বরাদ্দ হাতে না পাওয়া পর্যন্ত এটি সচল করা যাচ্ছে না। তিনি রোগী দুর্ভোগের কথা স্বীকার করে দুঃখ প্রকাশ করেন। রাজস্থলী উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান উবাচ মারমা বলেন, হাসপাতালের এম্বুলেন্সটি দ্রুত সচল করতে জেলা সিভিল সার্জন’র সাথে আলাপ করেছেন।

The Post Viewed By: 26 People

সম্পর্কিত পোস্ট