চট্টগ্রাম রবিবার, ০৮ ডিসেম্বর, ২০১৯

সর্বশেষ:

১৬ নভেম্বর, ২০১৯ | ৩:২৬ পূর্বাহ্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক

খাতুনগঞ্জে চসিকের ভাগাড়ে ২০ টন পচা পেঁয়াজ!

কিছুতেই লাগাম ধরে রাখা যাচ্ছে না পেঁয়াজের দাম। প্রতিদিনই লাফিয়ে লাফিয়ে আকাশচুম্বী হচ্ছে এই পেঁয়াজ। পেঁয়াজের দাম বৃদ্ধি পেলেও বৃহস্পতিবার রাতে নগরীর খাতুনঞ্জের সিটি কর্পোরেশনের ময়লার ভাগাড় থেকে ২০ টন পচা পেঁয়াজ সরাতে হয়েছে পরিচ্ছন্ন কর্মীদের। তবে এসব পেঁয়াজ দোকানির গুদামে থেকে পচে নষ্ট হয়েছে নাকি আমদানি করা পেঁয়াজ পচা হওয়ায় ব্যবসায়ীরা ফেলে দিচ্ছে তা নিয়ে রয়েছে সংশয়।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, গত বৃহস্পতিবার রাতে সিটি কর্পোরেশনের চারটি গাড়িকে প্রায় বিশ টন পচা পেঁয়াজ সরাতে হয়েছে খাতুনগঞ্জের ভাগাড়

থেকে। তবে এসব পেঁয়াজ কোথা থেকে এসেছে এ বিষয়ে নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

পচা পেঁয়াজ ভাগাড়ে থাকার বিষয়টি নিশ্চিত করে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের পরিচ্ছন্ন কর্মকর্তা মোরশেদ আলম পূর্বকোণকে বলেন, ‘রাতে কে বা কারা খাতুনগঞ্জের ময়লার ভাগাড়ে বস্তায় বস্তায় এসব পেঁয়াজ রেখে যায়। বিষয়টি স্থানীয় কাউন্সিলর পরিচ্ছন্ন বিভাগকে জানান। রাতেই পাঁচ টন ধারণ ক্ষমতার চারটি গাড়ি গিয়ে তা সরিয়ে নেয়’।

অন্যদিকে এসব পচা পেঁয়াজের ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ায় সমালোচনা করছেন অনেকেই। অনেকেই বলছেন অতি মুনাফার আশায় এসব পেঁয়াজ গুদামজাত করায় পচে নষ্ট হয়েছে। পচনশীল পণ্য হওয়ার পরও অতি লোভে ব্যবসায়ীরা এসব পেঁয়াজ পচাচ্ছে বলেও অনেকেই মন্তব্য করেন। এত পেঁয়াজ নষ্ট হওয়ার জন্য ব্যবসায়ীদেরকেই দায়ি করছেন অনেকেই।
এদিকে ব্যবসায়ীদের দাবি, এসব পেঁয়াজ মিয়ানমার থেকে আমদানি করার সময় পচে যাওয়ায় তা ফেলে দিতে হচ্ছে। যার জন্য তাদের বিশাল লোকসানের শিকারও হতে হচ্ছে।

The Post Viewed By: 403 People

সম্পর্কিত পোস্ট