চট্টগ্রাম রবিবার, ১৫ ডিসেম্বর, ২০১৯

১৫ নভেম্বর, ২০১৯ | ২:২৭ পূর্বাহ্ন

জাহেদুল আলম হ রাউজান

বন্ধুর বিয়েতে এসে কর্মস্থলে ফেরা হলো না এএসআই রিংকনের

কর্মস্থলে আর যোগদান করা হলো না পুলিশের সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) রিংকন বড়ুয়ার (২৬)। আর কখনো নিজের চাকুরিতে ফেরাও হবে না তার। তিনি গতকাল (বৃহস্পতিবার) সকাল ৯টায় নিথরদেহে ফিরেছেন রাউজানের আপন ঠিকানায়। আর মা, ভাই, স্বজন ও প্রতিবেশীরা রিংকনকে বিদায় জানালো অশ্রুসজল নয়নে। এর আগে রিংকন বুধবার সন্ধ্যা ৬ টায় চট্টগ্রাম-ঢাকা মহাসড়কের কুমিল্লায় সড়ক দুঘটনায় নিহত হন। গতকাল (বৃহস্পতিবার) বিকেলে রাউজান উপজেলার পূর্ব গুজরা ইউনিয়নের ছাদাংগরকিল গ্রামের মাহালদার বাড়ির নিজস্ব শ্মশানে ধর্মীয় রীতি অনুযায়ী তাকে দাহ (সৎকার) করা হয়। রিংকন ওই এলাকার মাহালদার বাড়ির মৃত আশুতোষ বড়ুয়ার কনিষ্ঠ ছেলে। তারা ২ ভাই।

নিহতের চাচাতো ভাই কনক বড়–য়া জানান, সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) রিংকন কুমিল্লা চাঁদপুরের কসবা থানায় কর্মরত ছিলেন। বন্ধুর বিয়ের জন্য সপ্তাহখানেক আগে রাউজনের বাড়িতে আসেন। বুধবার সকাল ৯টার দিকে নিজ কর্মস্থলে পুনরায় যোগদানের জন্য ঘর থেকে বের হন। এরপর তিনি চট্টগ্রাম শহরের এক বন্ধুর বাসায় উঠেন কয়েক ঘণ্টার জন্য। দুপুরের পর কর্মস্থলের উদ্দেশ্যে বন্ধুর মোটরসাইকেলে করে রওনা দেন। সন্ধ্যা ৬ টার দিকে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিল্লায় পদুয়া বাজারের কাছে পৌঁছলে তাদের মোটরসাইকেলটিকে একটি ট্রাক (লরি) পেছন থেকে ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই প্রাণ হারান রিংকন। আর মোটরসাইকেল চালক বন্ধুটি আহত হলেও সৌভাগ্যক্রমে বেঁচে যান। রাতে তার মৃত্যু সংবাদটি পরিবারের সদস্যদের মোবাইলে জানান নিজ কর্মস্থলের সহকর্মীরা। খবর পেয়ে নিহতের মৃতদেহ গ্রামের বাড়িতে আনতে রাতেই রওনা দেন চাচা শিলব্রত বড়–য়া ও আত্মীয় স্বজনরা।

গতকাল (বৃহস্পতিবার) সকাল ৯টার দিকে তার লাশ গ্রামের বাড়িতে পৌঁছলে শোকে পাথর বনে যাওয়া মা কাকলী বড়ুয়ার আহাজারিতে বাড়ির পরিবেশ ভারী হয়ে উঠে। সেখানে এক হৃদয়বিদারক দৃশ্যের অবতারণা হয়। কান্নায় ভেঙ্গে পড়েন স্বজন-প্রতিবেশীরাও। বিকেল তিনটার দিকে স্থানীয় পূর্বরাম বিহারের মাঠ প্রাঙ্গণে তার স্মৃতিচারণ অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়। প্রতিবেশীদের কাছে জানা যায়, রিংকন এইচএসসি পাশ করার পর ২০১০ সালে বাংলাদেশ পুলিশ বাহিনীতে কনস্টেবল পদে যোগদান করেন। ২০১৭ সালে সহকারী উপ-পরিদর্শক পদে পদোন্নতি পান। তিনি ব্যক্তিগত জীবনে অবিবাহিত ছিলেন।

The Post Viewed By: 51 People

সম্পর্কিত পোস্ট