চট্টগ্রাম রবিবার, ১৫ ডিসেম্বর, ২০১৯

১৫ নভেম্বর, ২০১৯ | ২:০৯ পূর্বাহ্ন

নিজস্ব প্রতিবেদক

ট্রাক ও কাভার্ডভ্যান মালিক সমিতির সংবাদ সম্মেলন

যোগ্যতা দেখে তৎক্ষণিক লাইসেন্স দিলে চালকের সংকট কেটে যাবে

সুষ্ঠু যান চলাচলের জন্য ড্রাইভিং লাইসেন্স চাহিদার ক্ষেত্রে দক্ষতা ও যোগ্যতা যাচাই করে তৎক্ষণাৎ লাইসেন্স দিলে চালকের সংকট কেটে যাবে বলে মন্তব্য করেছেন আন্তঃজিলা মালামাল পরিবহন সংস্থা ট্রাক ও কাভার্ডভ্যান মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক দীন মোহাম্মদ। গতকাল বৃহস্পতিবার চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে একথা বলেন।

দীন মোহাম্মদ বলেন, দেশে ছোট-বড় প্রায় ১ কোটি গাড়ির লাইসেন্স রয়েছে। চালকের লাইসেন্স রয়েছে ৪০ লাখ। এর মধ্যে ১০ লাখ চালক পেশায় নেই। ভারী ড্রাইভিং লাইসেন্স চাহিদার তুলনায় অনেক কম। চালকের স্বল্পতার কারণে অর্ধেকের বেশি ভারী গাড়ি চলাচল করছে না। সড়ক পরিবহন আইন ২০১৮ এর কিছু ধারা সংশোধনের আহ্বান জানিয়ে এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়। তিনি বলেন, সড়ক আইন ২০১৮ এর অনেক ধারা সমিতি সমর্থন করে জানিয়ে তিনি বলেন, প্রাইম মুভার ও ট্রেইলার উভয়ের ক্ষেত্রে পৃথক রেজিস্ট্রেশন নম্বর প্লেট প্রয়োজন যা বিভ্রান্তিকর। গাড়ি সংযোজন বিয়োজন করলে ৩ লাখ টাকা জরিমানার আইন অকল্পনীয়।

আমরা মনে করি, আগের গাড়িগুলোর রেজিস্ট্রেশন সনদ অনুযায়ী চলাচলের অনুমতি দিয়ে নতুন রেজিস্ট্রেশন করা গাড়ির ক্ষেত্রে এ আইন কার্যকর হোক।

তিনি বলেন, যদি কোনো গাড়িকে পুলিশ মামলা দেয় তবে তা যেন আদালতের মাধ্যমে নিষ্পত্তি করার বিধান রাখতে হবে। গাড়ির কাগজ যাচাই পুলিশের নিদির্ষ্ট বিভাগকে দেওয়া হোক। এ সমিতির অধীনে ৬ হাজারের বেশি ট্রাক ও কাভার্ডভ্যান রয়েছে বলে জানান তিনি।
সংবাদ সম্মেলনে প্রাইম মুভার মালিক সমিতির কার্যকরী সভাপতি মো. আবু বকর সিদ্দিক বলেন, ‘নতুন গাড়ির লাইসেন্স ৩ ঘণ্টায় দিতে পারলে তিন মাসে চালকের লাইসেন্স দেওয়া যাবে না কেন? ফাঁসির রশি গলায় নিয়ে চালকেরা গাড়ি চালাবে না। চালকরা যদি গাড়ি না চালান তার দায়িত্ব আমরা নিতে পারি না।’

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সমিতির সভাপতি মনির আহমদ, বৃহত্তর চট্টগ্রাম পণ্য পরিবহন মালিক ফেডারেশনের সভাপতি আবদুল মান্নান, মহাসচিব নুরুল আবচার, যুগ্ম সম্পাদক জাহাঙ্গীর দস্তগীর, প্রাইম মুভার মালিক সমিতির কার্যকরী সভাপতি মো. আবু বকর সিদ্দিক, জহুরুল ইসলাম দুলাল, আবদুল নবী লেদু, পতেঙ্গা হালিশহর ট্রাক মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক মো. হারুন, মোহাম্মদ মোস্তফা, আবদুল মাবুদ প্রমুখ।

The Post Viewed By: 49 People

সম্পর্কিত পোস্ট