চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ১২ ডিসেম্বর, ২০১৯

১৪ নভেম্বর, ২০১৯ | ২:০৯ পূর্বাহ্ন

সুপর্ণা পাল

সক্ষম হলে সরকারকে কিছু দেওয়া উচিত

আমি যখন মাস্টার্স শেষ করি তখন আমি ভেবেছিলাম যেকোন একটা চাকরির সাথে নিজেকে জড়িয়ে নিব। কিন্তু বিয়ে হয়ে যাওয়ার কারণে আমার আর চাকরি করা হয়নি। আমার স্বামী খাগড়াছড়ি জেলার একজন প্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ী। তাকে দেখেই আমার ব্যবসার দিকে অনুপ্রাণিত হওয়া। ইচ্ছে জাগে

ব্যবসা করবো। প্রথমে ছোট খাটো ভাবেই আমি স্বর্ণের ব্যবসা শুরু করি আমার জমানো টাকায়। পরে স্বামীর সহায়তায় ব্যবসাটা আরেকটু বাড়াই।

এভাবেই সৃষ্টিকর্তার কৃপায় আমার ব্যবসা একপর্যায়ে এসে উন্নতির দিকে আগাতে থাকে। এরপর আমার মনে হল দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য সরকারকে কিছু দেয়া উচিত। আমি আয়কর দিতে শুরু করি। যার ফলশ্রুতিতে আজ সেরা করদাতা হিসেবে পুরস্কৃত হলাম। আমার অনুপ্রেরণা হচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ওনাকে দেখে আমরা মেয়েরা দেশের জন্য কিছু করতে অনুপ্রাণিত হই। আমি একজন মেয়ে হয়ে সেরা করদাতার পুরস্কার গ্রহণ করে আজ খুব গর্বিত। সামনে এগিয়ে যাওয়ার উৎসাহ পেলাম। আমি চাইবো, আমার মত আরো যারা আছেন, যারা ব্যবসা করছেন, প্রতিষ্ঠিত হয়েছেন তারা দেশকে এগিয়ে নিতে সরকারকে কিছু দেন। আপনাদের কাছ থেকে পাওয়া টাকা থেকে দেশে উন্নয়নমূলক কাজ চলবে। এতে করে ধীরে ধীরে এগিয়ে যাবে দেশ।

সুপর্ণা পাল খাগড়াছড়ি জেলার সর্বোচ্চ করপ্রদানকারী মহিলা করদাতা হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন। তিনি স্বর্ণের ব্যবসার সাথে সম্পৃক্ত।

The Post Viewed By: 39 People

সম্পর্কিত পোস্ট