চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ১৪ নভেম্বর, ২০১৯

সর্বশেষ:

১৪ অক্টোবর, ২০১৯ | ৩:১২ পূর্বাহ্ণ

সীতাকু-ে বিয়ের প্রলোভনে তরুণীকে ধর্ষণ, গ্রেপ্তার ১

সীতাকু-ে এক তরুণীকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে দফায় দফায় ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় ভুক্তভোগী তরুণীর মা বাদি হয়ে থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ অভিযুক্তকে গ্রেপ্তার করেছে। গ্রেপ্তারকৃত যুবকের নাম রিয়াজ উদ্দিন রাহাত (২৮)। সে উপজেলার ভাটিয়ারী ইউনিয়নের ভাটিয়ারী বালু রাস্তার রমজান আলী মেম্বার বাড়ির মো. সিরাজউদ্দৌলার ছেলে। থানায় দায়েরকৃত মামলা সূত্রে জানা গেছে, সীতাকু-ের ভাটিয়ারীর বাসিন্দা রিয়াজ উদ্দিন রাহাতের সাথে গত ৭ বছর আগে একই এলাকার ভাটিয়ারী স্টেশান রোড মোলভীপাড়ার এক কলেজ ছাত্রী মৌসুমীর (ছদ্মনাম) পরিচয় ও প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে।

সেই থেকে ঐ তরুণীকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে বিভিন্ন সময়ে বারবার শারীরিক সম্পর্ক করে রাহাত। এ বিষয়টি জানাজানি হবার পর ঐ তরুণীর মা নিজের মেয়েকে বিয়ের জন্য রাহাতকে চাপ দিলে একপর্যায়ে সে বিয়ে করতে অস্বীকৃতি জানায় এবং যোগাযোগ বন্ধ করে দেয়। এরমধ্যে গত ৩০ আগস্ট মৌসুমী সীতাকু-ের ফকিরহাট এলাকায় খালার বাড়িতে যাবার সময় রাহাত তাকে দেখতে পেয়ে কৌশলে গাড়িতে তুলে চট্টগ্রামের একটি হোটেলে নিয়ে জোরপূর্বক পুনরায় একাধিকবার ধর্ষণ করে। পরে সে বাড়ি এসে মাকে সব ঘটনা খুলে বলে। এসব শুনে তার মা রাহাতের বাড়িতে গিয়ে ঘটনা অবগত করেন এবং এর প্রতিকার দাবি করেন। রাহাতের পরিবার এ বিষয়টি স্থানীয়ভাবে সমাধানের আশ^াস দিয়ে অযথা কালক্ষেপণ করতে থাকে। কোন সুরাহা না হওয়ায় ভুক্তভোগির মা লায়লা বেগম বাদি হয়ে সীতাকু- থানায় ধর্ষণ মামলা দায়ের করেছেন। পরে পুলিশ রাহাতকে গ্রেপ্তার করে কোর্ট হাজতে প্রেরণ করেছে। সীতাকু- থানার ওসির দায়িত্বে থাকা ওসি (তদন্ত) মো. শামীম শেখ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, মেয়েটিকে বিয়ের প্রলোভনে সে বারবার ধর্ষণ করেছে। কিন্তু বিয়ে করতে অস্বীকৃতি জানাচ্ছে। তাই বাধ্য হয়ে তার মা শনিবার গভীর রাতে মামলা দায়ের করলে আমরা আসামিকে গ্রেপ্তার করে কোর্ট হাজতে প্রেরণ করেছি।

The Post Viewed By: 196 People

সম্পর্কিত পোস্ট