চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ২২ অক্টোবর, ২০১৯

সর্বশেষ:

২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | ১:৫৬ পূর্বাহ্ণ

নজরুল স্মরণানুষ্ঠানে অনিন্দ্য ব্যানার্জী বাঙালির মনন ও মানসে প্রবাহমান সাম্য ও বিদ্রোহের কবি নজরুল

চট্টগ্রামস্থ ভারতীয় দূতাবাসের সহকারী হাইকমিশনার অনিন্দ্য ব্যানার্জী বলেন, নজরুল বাংলা ও বাঙালির চির অহংকার। দুই বাংলার মানুষের কাছে নজরুল চির অম্লান। বিংশ-শতাব্দীর উষালগ্নে ভারতীয় উপমহাদেশে সাহিত্য জগতে তার আবির্ভাব ছিল অনেকটা ধূমকেতুর মত। সংস্কৃতি ও সাহিত্যে এমন কোন শাখা নেই যেখানে তিনি অবদান রাখেননি। নজরুলকে স্মরণ করা মানেই বাঙালির অস্তিত্বকেই স্মরণ করা। সাম্য ও বিদ্রোহের কবি কাজী নজরুল বাঙালির মনন ও মানসে চির প্রবাহমান। গতকাল শনিবার বিকেলে সঙ্গীত পরিষদ আয়োজিত নজরুল স্মরণানুষ্ঠানের শেষ দিনে উদ্বোধকের বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন। সঙ্গীত পরিষদের সভাপতি মেজর জেনারেল (অব.) আবদুল মতিনের সভাপতিত্বে স্বাগত বক্তব্য রাখেন পরিষদের সম্পাদক তাপস হোড়। প্রধান অতিথি ছিলেন কলিকাতাস্থ রবীন্দ্র ভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক প্রফেসর ড. নুপুর গাঙ্গুলী। প্রধান অতিথি বলেন, বাঙালির অনুভবে মিশে আছে নজরুল। প্রেম ও দ্রোহে, সত্যে ও সততায়, দ্বিধাহীন চেতনার আলোকে এই ঝর্ণা ধারা আজো বইয়ে দিচ্ছেন নজরুল।

অনিন্দ্য ব্যানার্জী মঙ্গল প্রদীপ প্রজ্জ্বলনের মাধ্যমে অনুষ্ঠানের সূচনা করেন। এ সময় পরিষদের ছাত্র-ছাত্রীবৃন্দ ‘অঞ্জলি লহ মোর সঙ্গীতে’ গানটি পরিবেশন করে। প্রফেসর ড. নুপুর গাঙ্গুলী ঘন্টাব্যাপী একক কন্ঠে নজরুলের গান পরিবেশন করেন। উপস্থাপনায় ছিলেন অধ্যাপক দেবাশীষ রুদ্র। সঙ্গীতানুষ্ঠান পরিচালনা করেন মিতালী রায়, পিন্টু ঘোষ, শম্পা ভট্টাচার্য্য, বনানী চক্রবর্ত্তী, জয় প্রকাশ ভট্টাচার্য্য, প্রান্ত আচার্য্য, দীপ্ত দত্ত প্রমুখ।-বিজ্ঞপ্তি

The Post Viewed By: 48 People

সম্পর্কিত পোস্ট