চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ১৭ অক্টোবর, ২০১৯

সর্বশেষ:

২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | ২:৫২ এএম

ব্র্যাক ব্যাংক ও চসিকের চুক্তি চসিকের ফি এখন থেকে অনলাইনে

এখন থেকে চট্টগ্রাম শহরের বাসিন্দারা সিটি কর্পোরেশনকে প্রদেয় তাদের সব রকম ফি ব্র্যাক ব্যাংক লিমিটেডের মাধ্যমে অনলাইনে প্রদান করতে পারবেন। অত্যাধুনিক ডিজিটাল ব্যাংকিং প্ল্যাটফর্ম, এজেন্ট ব্যাংকিং চ্যানেল এবং সব শাখার মাধ্যমে মহানগরীর জনগণ হোল্ডিং ট্যাক্স, ট্রেড লাইসেন্স ফি, এস্টেট রেন্ট, বাণিজ্যিক স্থানের বা বাড়িভাড়া, উন্নয়ন ফি, লিজ রেন্ট ইত্যাদিসহ সকল ফি অনলাইনে সহজ ও স্বাচ্ছন্দ্যের সঙ্গে পরিশোধ করতে পারবেন। ব্র্যাক ব্যাংক লিমিটেড এবং চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মধ্যে একটি চুক্তি স্বাক্ষর হওয়ায় নগরবাসী এই সুবিধা পাবেন।
গত ১৮ সেপ্টেম্বর সিটি কর্পোরেশনের সদরদপ্তরে মেয়র আবু জাহেদ মোহাম্মদ নাসির উদ্দিনের উপস্থিতিতে ব্র্যাক ব্যাংকের উপ-ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং সিআরও চৌধুরী

আখতার আসিফ এবং চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ও যুগ্ম-সচিব মো. শামসুদ্দোহা চৌধুরী স্ব স্ব প্রতিষ্ঠানের পক্ষে চুক্তিটি স্বাক্ষর করেন।

এই উদ্যোগের বিষয়ে ব্র্যাক ব্যাংকের চৌধুরী আখতার আসিফ বলেন, এখন থেকে বন্দরনগরীর জনগণ নির্ধারিত ব্যাংকিং সময়ের বাইরেও যেকোনো সময়ে তাদের সকল ফি পরিশোধ করতে পারবেন। এটি গ্রাহককে ইলেকট্রনিক লেনদেন সুবিধা দেয়ার পাশাপাশি ব্যাংকিংয়ের অভিজ্ঞতাটিকেও মনোরম করবে। উদ্যোগটি সরকারের ডিজিটাল বাংলাদেশের গড়ার লক্ষ্যকে এগিয়ে নিতে সাহায্য করবে। এই ডিজিটাল উদ্যোগে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের সাথে অংশীদার হতে পেরে আমরা গর্বিত ও সম্মানিত। গ্রাহকদের আরও উন্নত ও স্বাচ্ছন্দ্যময় ব্যাংকিং সেবা প্রদানে ব্র্যাক ব্যাংক সবসময় প্রযুক্তি ও সেবায় নতুনত্ব নিয়ে আসা অব্যাহত রাখবে।”

ব্র্যাক ব্যাংকের পক্ষ থেকে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন হেড অব এসএমই ব্যাংকিং সৈয়দ আবদুল মোমেন, ঢাকা সেন্ট্রাল ও দক্ষিণ-পূর্ব অঞ্চলের রিজিয়নাল হেড শেখ মোহাম্মদ আশফাক, চট্টগ্রাম অঞ্চলের রিজিয়নাল হেড মো. সালাউদ্দিন হাজারী, হেড অব লিগ্যাল অ্যান্ড রিকভারি ডিভিশন রশীদ আহমেদ, আগ্রাবাদ এরিয়া হেড মুহম্মদ শাহ্ এবং কদমতলী ব্রাঞ্চের ব্রাঞ্চ ম্যানেজার আলতাফ হোসেন। চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের পক্ষ থেকে আরো উপস্থিত ছিলেন সেক্রেটারি আবু শাহেদ চৌধুরী, চিফ রেভিনিউ অফিসার মফিদুল ইসলাম এবং চিফ অ্যাকাউন্ট্যান্ট মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন।-বিজ্ঞপ্তি

The Post Viewed By: 96 People

সম্পর্কিত পোস্ট