চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ১৭ অক্টোবর, ২০১৯

সর্বশেষ:

২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | ১:৩৬ এএম

নিজস্ব সংবাদদাতা, বোয়ালখালী

ইউএনও’র কাছে আবেদন পল্লী বিদ্যুতের অনিয়ম নিয়ে ক্ষোভ চরণদ্বীপবাসীর

চরণদ্বীপের এক গ্রাহকের মিটারে ৯ সেপ্টেম্বর বিলে রিডিং লেখা হলো ১৯৫৩৫ ইউনিট। ১৬ সেপ্টেম্বর তিনি মিটার চেক করে দেখতে পান ১৯৪৫৩ ইউনিট। এতে তিনি হতভম্ব হন। বিষয়টি স্থানীয় ইউপি সদস্য ও চেয়ারম্যানকে জানান। ইউপি সদস্য খোঁজ নিতে গিয়ে বের হয়ে আসে পল্লী বিদ্যুৎ অফিসের অনিয়মের নানান চিত্র। তিনি গত (বুধবার) দুপুরে এলাকাবাসীকে নিয়ে এর প্রতিকার চেয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর অভিযোগ দেন। অভিযোগ পেয়েছেন স্বীকার করে ইউএনও আছিয়া খাতুন পূর্বকোণকে বলেন, বিষয়টি জনস্বার্থের। তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

অভিযোগকারী চরণদ্বীপ ইউনিয়নের ৭ নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য সাদ্দাম হোসেন বলেন, বেশ কিছুদিন যাবৎ লক্ষ্য করা যাচ্ছে, মিটারে হয়েছে ১২০ ইউনিট, লেখা হচ্ছে ২০০ ইউনিট। এ বিষয় নিয়ে গ্রাহকরা বললে পরের মাসে ঠিক করে দিবে বলেন বিদ্যুৎ অফিসের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা। পরে তা কখনও সমন্বয় করা হয়নি। দালালের মাধ্যমে জিম্মি করা হচ্ছে গ্রাহকদের। কোনো অভিযোগ আমলে নেয় না বিদ্যুৎ অফিস। স্বেচ্ছাচারিতায় ভরপুর হয়েছে বিদ্যুৎ অফিস। তাই উপায়ন্তু না দেখে ইউএনও বরাবর আবেদন করা।

জানতে চাইলে বোয়ালখালী পল্লী বিদ্যুৎ জোনাল অফিসের ডিজিএম রফিকুল আজাদ জানান, চরণদ্বীপ থেকে প্রায় ৪০ জন সকালে আমার সাথে দেখা করে। তাদের অভিযোগ শুনে তা খতিয়ে দেখার বিষয়টি নিশ্চিত করেছি। অনিয়ম হলে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

The Post Viewed By: 66 People

সম্পর্কিত পোস্ট