চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ১২ ডিসেম্বর, ২০১৯

১৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | ২:০২ পূর্বাহ্ন

সার্ভেয়ারের প্রতিবাদ ৬৩ লক্ষ টাকা আত্মসাতের বিষয় সত্য নয়

দৈনিক পূর্বকোণে গত সোমবার ‘ভুয়া মালিক সাজিয়ে ৬৩ লাখ টাকা আত্মসাৎ সার্ভেয়ার কামরুলের’ শিরোনামে প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ জানিয়েছেন চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের এল এ শাখার সার্ভেয়ার মো. কামরুল হাসান। তিনি বলেন, খলিলুর রহমান এর প্রাপ্য অংশ হতে তার নিজের ও অপর ওয়ারিশগনের বিক্রিত অংশ বাদে অবশিষ্ট জমির ক্ষতিপূরণ বাবদ বিধি মোতাবেক সরকারি ২% উৎস কর বাদে প্রাপ্য ৫৯ লাখ ১৬ হাজার ৭৮৯ টাকার চেক গ্রহণ করেন। এছাড়া খলিলুর রহমান হতে ক্রয়সূত্রে মালিক হয়ে জনৈক গোলাম মোহাম্মদ ও জসিম উদ্দিন গাছপালার ক্ষতিপূরণসহ তাদের বিধি মোতাবেক উৎস কর প্রদান করে মোট ২৬ লাখ ৫৯ হাজার ৬৬২ টাকা ক্ষতিপূরণ গ্রহণ করেন। আরও উল্লেখ্য যে খলিলুর রহমানের আপন চাচা গনু মিয়াও রেকর্ডসূত্রে একই জমির অর্ধেক অংশের মালিক হওয়ায় তার বৈধ ওয়ারিশ হিসেবে চাচাতো ভাই মামুনুর রশিদ তাদরে পাপ্য হিস্যমতে ২% উৎস কর প্রদানপূর্বক মোট ৮৫ লাখ ৮৬ হাজার ৪৫১ টাকার চেক গ্রহণ করেছেন। ক্ষতিপূরণ গ্রহীতাগন প্রকৃতপক্ষে খলিলুর রহমান হতে ক্রয়সূত্রে মালিক এবং রেকর্ডসূত্রেসহ অংশিদার। তরা ভুয়া মালিক নন।
ঘুষ দিয়ে বা ঘুষের বিনিময়ে মালিকানা স্বত্ত্ব নাই এমন ব্যক্তিকে এবং প্রাপ্য হিস্যার চেয়ে অধিক ক্ষতিপূরণ দাবীকারীকে ক্ষতিপূরণ প্রদানের আইনগত কোন সুযোগ নেই। যেহেতু রেকর্ডীয় মালিকের ওয়ারিশ অধিগ্রহণকৃত ভূমির ক্ষতিপূরণের টাকার চেক গ্রহণ করেছেন তাই এ নিয়ে কথিত ভুয়া মালিক সাজিয়ে অর্থ আত্মসাৎ করার বিষয়টি কাল্পনিক ও ভিত্তিহীন।
প্রতিবেদকের বক্তব্য: দুর্নীতি দমন কমিশন-দুদকে অভিযোগের তথ্যানুসারে এই সংবাদ পরিবেশন করা হয়েছে। যেখানে প্রতিবেদকের নিজের কোন বক্তব্য নেই।

The Post Viewed By: 103 People

সম্পর্কিত পোস্ট