চট্টগ্রাম শুক্রবার, ২০ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

সর্বশেষ:

২৫ আগস্ট, ২০১৯ | ২:২২ এএম

নিজস্ব সংবাদদাতা হ বাঁশখালী

২ জেলে নিখোঁজের অভিযোগ

কুতুবদিয়া চ্যানেলে মাছ ধরার ৩ ট্রলার ডাকাতি, ১৮ লক্ষ টাকার জাল ও মাছ লুট

চাম্বল থেকে বঙ্গোপসাগরের কুতুবদিয়া চ্যানেলে মাছ ধরতে গিয়ে ৩ মাছ ধরার ট্রলারে জেলেরা জলদস্যু (ডাকাত) দলের কবলে পড়েছে। গতকাল শনিবার সকাল ১০ টার দিকে কুতুবদিয়া চ্যানেলে ডাকাতির ঘটনাটি ঘটে। ডাকাত দল অস্ত্র ঠেকিয়ে জেলেদের কাছ থেকে জাল, মাছসহ ১৮ লক্ষাধিক টাকার মালামাল লুটে নেয়। বোটের মালিক মো. আবদুল্লাহ বাদি হয়ে বাঁশখালী থানায় লিখিত অভিযোগ দায়েরের প্রস্তুতি নিচ্ছেন। ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীদের অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, চাম্বল বাংলা বাজার এলাকা থেকে গত সপ্তাহে সাহাব উদ্দিনের মালিকানাধীন এফ বি মায়ের দোয়া-১ ও মো. আবদুল্লাহর মালিকানাধীন এফ বি আল্লাহর

দান-১ ও এফ বি আল্লাহর দান-২ মাছ ধরার বোট কুতুবদিয়া চ্যানেলে টং ও বিহিন্দি জাল ফেলে। মাছ ধরে ফেরার পথে শনিবার সকালে ১৫-২০ জনের সশস্ত্র ডাকাত দল মাছ ও জাল ডাকাতিকালে বাধা দিতে গিয়ে জলদস্যুরা ২ জেলেকে পানিতে ফেলে দেয়। নিখোঁজ জেলেরা হলেন, চকরিয়া উপজেলার মো. হোছাইন (৩০), কুতুবদিয়ার মো. আনোয়ার হোসেন (৩২)।
চাম্বল বাংলা বাজার মাছ ধরার বোট মালিক সমিতির সভাপতি মো. হেফাজ উদ্দিন বলেন, গত সপ্তাহে ৩৫-৩৬ জেলে নিয়ে সাগরে ২ জন মালিকানাধীন ৩টি মাছ ধরার বোট কুতুবদিয়া চ্যানেলের গন্ডামারা সীমান্তে জাল ফেলে। জলদস্যুরা গতকাল সকালে জেলেদের উপর হামলা চালিয়ে ১৮ লক্ষাধিক টাকার মালামাল লুট করে নিয়ে যায়।
বাঁশখালী থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) মো. কামাল উদ্দিন বলেন, সাগরে ডাকাতির ব্যাপারটি কোস্ট গার্ড দেখভাল করেন। তবে কেউ যদি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন তদন্ত করে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

The Post Viewed By: 65 People

সম্পর্কিত পোস্ট