চট্টগ্রাম সোমবার, ১৬ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

সর্বশেষ:

১৯ আগস্ট, ২০১৯ | ১:৫৪ এএম

নিজস্ব সংবাদদাতা , কক্সবাজার

সংবাদ সম্মেলনে পঙ্গু বশর হত্যা মামলায় ফাঁসানোর অভিযোগ

টেকনাফে মামলার আসামি হাসপাতালে ভর্তি রোগী!

টেকনাফ উপজেলার সদর ইউনিয়নস্থ মহেশখালীয়াপাড়ায় গত ১১ আগস্ট রাতে পঙ্গু আবুল বশর নিহত হওয়ার ঘটনায় দায়েরকৃত মামলায় নিরীহ লোকজনকে আসামি করার গুরুতর অভিযোগ উঠেছে। জমি সংক্রান্ত বিরোধকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের লোকজনকে এ মামলায় আসামি করা হয়েছে। গত শনিবার (১৭ আগস্ট) সন্ধ্যায় কক্সবাজার প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে ওই এলাকার নূরুল ইসলামের পুত্র মোহাম্মদ শফিক(৩০) ও তার তিনভাই এই অভিযোগ করেছেন।
সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে মোহাম্মদ শফিক বলেন, মোহাম্মদ শফিক ও তার ভাইয়েরা দীর্ঘদিন ধরে সপরিবারে কক্সবাজার শহরে বসবাস করছেন। তাদের মা ও বড়ভাই হজ পালনে বর্তমানে সৌদি আরবে অবস্থান করছেন। এর মধ্যে গত ১১ আগস্ট পঙ্গু আবুল বশর খুন হয়। কিন্তু এসময় তিনি এবং তার ভাইসহ পরিবারের কেউই টেকনাফে ছিলেন না। মোহাম্মদ শফিক কিডনি রোগজনিত কারণে গত ১০ আগস্ট রাত ৩টার সময় কক্সবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি হন তিনি এবং সেখানেই ছিলেন তিনি। কিন্তু পঙ্গু আবুল বশর হত্যা মামলায় তিনি এবং তার তিন ভাই তারেক (২১), রাশেদ (১৮), ও আরিফকে (১৮) আসামি করা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, বেশ কয়েক বছর ধরে পঙ্গু আবুল বশরের পরিবারের সাথে তাদের জমি সংক্রান্ত বিরোধ চলছিল। ফায়দা হাসিলের জন্য পঙ্গু আবুল বশর হত্যাকা-ে দায়ের হওয়া মামলায় তাদের মিথ্যা আসামি করা হয়েছে। পরিকল্পিতভাবে তাদের এ মামলায় ফাঁসানো হয়েছে।
মোহাম্মদ শফিক বলেন, ‘আমরা এই মিথ্যা ও ষড়যন্ত্রমূলক মামলা থেকে রেহায় পেতে পঙ্গু আবুল বশর হত্যাকা-ের সঠিক তদন্ত করে প্রকৃত ঘটনার উদঘাটন করতে পুলিশ প্রশাসন ও সরকারের উর্ধ্বতন মহলের হস্তক্ষেপ কামনা করছি’।
সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন শফিকের ভাই তারেক, রাসেল ও আরিফ, মহেশখালীয়াপাড়ার স্থানীয় প্রতিবেশী আব্দুস সালাম, আব্দুল মাবুদ, মো. আমিন, রুবেল, আব্দুল হামিদ, আজিজুল হক, নজরুল ইসলাম ও বিপ্লব।

The Post Viewed By: 34 People

সম্পর্কিত পোস্ট