চট্টগ্রাম শনিবার, ২৮ জানুয়ারি, ২০২৩

সর্বশেষ:

২১ আগস্ট, ২০২২ | ১০:১২ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

‘২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় আওয়ামী লীগের ১/১১ কুশলীরাই জড়িত’

চট্টগ্রাম নগর বিএনপির আহবায়ক ডা. শাহাদাত হোসেন বলেছেন, ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার সাথে আওয়ামী লীগের ১/১১ কুশলীরাই জড়িত। একুশে আগস্ট আওয়ামী লীগের পূর্ব নির্ধারিত কর্মসূচি মুক্তাঙ্গণ থেকে মাত্র ৬ ঘণ্টার নোটিশে বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে আওয়ামী লীগের যে সব নেতার পরামর্শে পরিবর্তন করা হয়েছিল তাদেরকে রিমান্ডে এনে জিজ্ঞাসাবাদ করলে ২১ আগস্টের আসল রহস্য বেরিয়ে আসবে। শুধু রাজনৈতিক উদ্দেশ্য প্রনোদিত হয়ে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে এই মামলায় জড়ানো হয়েছে। আওয়ামী লীগের প্রয়াত নেতা মেয়র হানিফের ছেলে সাঈদ খোকনের সম্প্রতিক বক্তব্যে সেটা প্রমাণিত হয়েছে।

আজ রবিবার (২১ আগস্ট) সন্ধায় ৩৩ নম্বর ফিরিঙ্গী বাজার ওয়ার্ডে ‘এ’ ইউনিট বিএনপির দ্বি—বার্ষিক সম্মেলনে প্রথম অধিবেশনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।

ডা. শাহাদাত হোসেন আরও বলেন, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে পরিকল্পিতভাবে ভোট ডাকাতির মাধ্যমে আওয়ামী লীগকে বিজয়ী করার সমস্ত নগ্নচিত্র এখন সারাবিশ্বে ছড়িয়ে পড়েছে সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমে। রাষ্ট্রযন্ত্রকে আওয়ামী যন্ত্রে রূপান্তরিত করে দিনের ভোট রাতে করে জগদ্দল পাথরের মত এই স্বৈরাচারী সরকার চেপে বসেছে। জনগণের মৌলিক অধিকার ও গণতান্ত্রিক অধিকার রক্ষার লড়াইয়ে জনগণের দল বিএনপি আহ্বানে জনগণকে রাজপথে নেমে আসতে হবে।

প্রথম অধিবেশনে প্রধান বক্তা চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সদস্য সচিব আবুল হাশেম বক্কর বলেন, এই সরকারের দুর্নীতি দুঃশাসনের বিরুদ্ধে জেগে উঠতে হবে। রাজপথে দাবি আদায়ের মাধ্যমে এই সরকারের পতন ঘটাতে হবে। জ্বালানি তেলের মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে আগামীকাল থেকে চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির ১৫টি থানা ও ৪৩ টি ওয়ার্ডে যে বিক্ষোভ মিছিলের কর্মসূচি ঘোষণা করা হয়েছে তা নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধভাবে পালন করার জন্য আহ্বান জানাচ্ছি।

বাদ মাগরিব দ্বিতীয় অধিবেশন শুরু করে পুনর্গঠন কমিটির নেতারা। চট্টগ্রাম মহানগর বিএনপির সিনিয়র যুগ্ন আহবায়ক কোতোয়ালী থানা পুনর্গঠন কমিটির টিম প্রধান এম এ আজিজের সভাপতিতে এবং সাংগঠনিক পুনর্গঠন টিমের সদস্য আব্দুছ সাত্তার সেলিমের সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম নগর বিএনপির আহবায়ক কমিটির সদস্য মোহাম্মদ আলী, নগর বিএনপির সাবেক সহ—সভাপতি এম এ হালিম, পুনর্গঠন কমিটির সদস্য মাইমুনুল ইসলাম হুমায়ুন, মনোয়ারা বেগম মানি।

এছাড়া কোতোয়ালী থানা বিএনপির সভাপতি মনজুর রহমান চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ জাকির হোসেন, নগর বিএনপি নেতা হামিদ হোসেন, ওয়ার্ড বিএনপির সভাপতি আক্তার খান, সাধারণ সম্পাদক সাদেকুর রহমান রিপন, বিএনপি নেতা আমিনুর রহমান মিয়া, কাশেম সওদাগর, নূর হোসেন, সোহেল ওসমান মামুন, রবিউল ইসলাম, মোহাম্মদী ইদ্রিস, জাহেদ আহমেদ, আব্দুর রাজ্জাক, রমজান আলী, হামিদুল হক হাবু, ইকবাল শরীফ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

 

পূর্বকোণ/মামুন/পারভেজ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট