চট্টগ্রাম সোমবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২২

সর্বশেষ:

১১ আগস্ট, ২০২২ | ৫:৫৯ অপরাহ্ণ

সন্দ্বীপ সংবাদদাতা

সন্দ্বীপে ছুরিকাঘাতে গৃহবধূ ‘খুন’, স্বামী আটক

সন্দ্বীপের রহমতপুর ইউনিয়নে রাশেদা বেগম (২১) নামে এক গৃহবধূ ছুরিকাঘাতে নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। নিহত রাশেদা বেগম ওই গ্রামের জিহাদের স্ত্রী। এ ঘটনায় পুলিশ রাশেদার স্বামী জিহাদকে (২৭) আটক করেছে। বৃহস্পতিবার (১১ আগস্ট) দুপুরে তাকে গাছুয়া ফেরীঘাট এলাকার কেওড়া বাগান থেকে আটক করা হয়।

বুধবার (১০ আগস্ট) দিবাগত রাত সাড়ে ১২টায় ইউনিয়নের ৬ নম্বর ওয়ার্ডে জসিম উদ্দিনের বাড়িতে এই ঘটনা ঘটে।

রাশেদার বোন জানান, আমার বোনের চিৎকার শুনে আমরা ঘরের দরজা খুলে দেখি আমার বোন রক্তাক্ত অবস্থায় তার রুম থেকে বের হচ্ছিল। আমরা তাকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে স্থানীয় হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। তবে সে মারা যাওয়ার আগে তার স্বামী জিহাদ তাকে আঘাত করেছে বলে জানিয়েছে। ঘরে আমরা একটা ছুরি এবং জিহাদের একজোড়া জুতা ও কিছু টাকা পেয়েছি।

স্থানীয় ইউপি সদস্য ওমর শরীফ জানান, বুধবার রাতে রাশেদা বাবার বাড়িতে ছেলেসহ তার কক্ষে ঘুমিয়ে ছিল। দিবাগত রাত সাড়ে ১২টায় রাশেদার ঘাড়, গলা ও গালের ডানপাশে ছুরি দিয়ে তিনটি আঘাত করে খুনি। এতে ঘাড়ের রগ কেটে তার মৃত্যু হয়। ঘটনার পর থেকে রাশেদ পলাতক ছিল। আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে তাকে গাছুয়া ফেরিঘাট এলাকার কেওড়া বাগান থেকে আটক করা হয়।

তিনি আরও জানান, বিয়ের পর দাম্পত্য কলহের কারণে রাশেদা বাবার বাড়ি থাকতো। গত আড়াই বছর তারা আলাদা বসবাস করছে। জিহাদ তাকে নিজের বাড়ি নেওয়ার জন্য সামাজিকভাবে চেষ্টা করে। সেজন্য বেশ কয়েকবার শালিশী বৈঠক হয়। কিন্তু জিহাদ তার পক্ষে কোন অভিভাবক উপস্থিত করতে না পারায় তার কাছে রাশেদাকে তুলে দেওয়া হয়নি। রাশেদার দুই বছর বয়সী একটি পুত্রসন্তান রয়েছে।

সন্দ্বীপ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বশির আহম্মদ খান বলেন, রাশেদা খুনের অভিযুক্ত জিহাদকে আটক করা হয়েছে। এই বিষয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে।

পূর্বকোণ/পিআর/এএইচ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট