চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর, ২০২২

সর্বশেষ:

৭ আগস্ট, ২০২২ | ১১:৩২ অপরাহ্ণ

সীতাকুণ্ড সংবাদদাতা

সীতাকুণ্ডে কৃষকদলের বিক্ষোভ মিছিলের চেষ্টা পণ্ড করল পুলিশ

দ্রব্য মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে সীতাকুণ্ডের দুটি স্পটে বিক্ষোভ মিছিলের চেষ্টা করেছে জাতীয়তাবাদী কৃষক দল। তবে পুলিশের বাধায় শেষ পর্যন্ত তারা সফল হতে পারেনি।

রবিবার (৭ আগস্ট) দুপুরে এসব ঘটনা ঘটে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন সীতাকুণ্ড থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আবুল কালাম আজাদ।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে রবিবার সকালে সীতাকুণ্ডের বাড়বকুণ্ড ও বাঁশবাড়িয়ায় সরকার বিরোধী বিক্ষোভ মিছিলের উদ্যোগ নেয় বিএনপির অঙ্গ সংগঠন কৃষকদল। এ লক্ষ্যে কৃষকদলের নেতাকর্মীদের সাথে জড়ো হতে থাকে বেশ কিছু ছাত্রদল ও বিএনপিকর্মীও। কিন্তু গোপন সূত্রে তাদের বিক্ষোভ মিছিলের প্রস্তুতির কথা জানতে পারে সীতাকুণ্ড থানা পুলিশ। ফলে তারাও উপজেলার মহাসড়ক ঘিরে নিরাপত্তা ও অবস্থান জোরদার করে।

এদিকে একেবারে ভোর থেকে মহাসড়কের পাশেপাশে পুলিশের এ অবস্থান দেখে জড়ো হয়েও আর মিছিল করতে পারেনি তারা।

বাঁশবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মো. শওকত আলী জাহাঙ্গীর বলেন, আমি খবর পেয়েছি ছাত্রদল নেতাকর্মীসহ বিএনপির অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীরা বাঁশবাড়িয়ায় এসে গ্রামের মধ্যে জড়ো হন। সেখান থেকে মহাসড়কে তারা দ্রব্য মূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে বিক্ষোভ মিছিল করার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। এই খবর পেয়ে বাঁশবাড়িয়া ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরাও সারাদেশে বিএনপি ও অঙ্গ সংগঠনের নৈরাজ্য সৃষ্টির চেষ্টার প্রতিবাদে মহাসড়কে জড়ো হতে থাকে। কড়া অবস্থান ছিলো পুলিশেরও। ফলে তারা সংঘবদ্ধ হয়েও আর মহাসড়কে উঠতে পারেননি। শেষে মিছিল হয়নি।

সীতাকুণ্ড থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ আবুল কালাম আজাদ বলেন, তারা কৃষক দল কিনা আমরা জানি না। আমাদের কাছে খবর ছিলো বিএনপির নেতাকর্মীরাই দ্রব্যমূল্য বৃদ্ধির প্রতিবাদে মিছিল করার জন্য জড়ো হবে। এই খবরে রবিবার সকাল থেকেই আমরা বাড়বকুণ্ড, বাঁশবাড়িয়াসহ বিভিন্ন স্থানে পুলিশ মোতায়েন করেছি। শেষে তারা জড়ো হয়েও আর মহাসড়কে মিছিল করতে পারেনি।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে জেলা বিএনপি নেতা কাজী সালাউদ্দিন বলেন, উপজেলায় কোন বিএনপির মিছিল হয়নি। এ বিষয়ে আমার কাছেও একজন নেতা এ বিষয়ে জানতে চান। পরে খোঁজ নিয়ে জানতে পারি কৃষকদল কর্মসূচি দিতে চেয়েছিলো। পুলিশ বাঁধা দিয়েছে।

জানতে চাইলে উপজেলা বিএনপির সাবেক আহ্বায়ক জহুরুল আলম জহুর বলেন, এ কর্মসূচির বিষয়ে আমাকে কেউ কিছু বলেনি। তাই আমি অবগত নই।

 

পূর্বকোণ/সৌমিত্র/মামুন/পারভেজ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট