চট্টগ্রাম শুক্রবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২১

২৬ জুলাই, ২০১৯ | ১:৫৭ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

বনের ভেতর ঘর নির্মাণ পদুয়ায় সংরক্ষিত বন অরক্ষিত

রাঙ্গুনিয়ার দক্ষিণ পোমরা সংরক্ষিত বনাঞ্চল অরক্ষিত হয়ে পড়েছে। বনের ভেতরে গড়ে উঠছে ঘরবাড়ি। অভিযোগ রয়েছে, বন বিভাগের কর্মকর্তাদের যোগসাজশে বন বেদখল হয়ে যাচ্ছে।
স্থানীয় সূত্র জানায়, দক্ষিণ পোমরা চৌদিয়া রোডের দক্ষিণে জামালের বাপের পাহাড়ের (লাদেন্যার টিলা) ভাঁজে ভাঁজে অবৈধভাবে ঘর নির্মাণ করা হচ্ছে। গত কয়েকদিনে আটটি ঘর নির্মাণ করা হয়েছে। অভিযোগ রয়েছে, বন বিভাগের কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের যোগসাজশে এসব ঘর নির্মাণ করা হচ্ছে। ঘর নির্মাণে সহায়তার জন্য বন বিভাগের লোকজন এক লাখ টাকা পর্যন্ত নিচ্ছে বলে দাবি এলাকাবাসীর।
অভিযোগ রয়েছে, বিট কর্মকর্তা মাসুম কবির ও কর্মচারী দিদার এবং সাইফুল টাকার বিনিময়ে ঘর নির্মাণে সহায়তা করে আসছেন।
জানতে চাইলে বন কর্মকর্তা মাছুম কবির বলেন, ‘দুই দিন আগে দায়িত্ব নিয়েছি। আমি সকাল ও বিকেল ঘোরাঘুরি করি। ঘর তো দেখিনি।’ এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘যা ছিল আগের।’ সংরক্ষিত বনাঞ্চলে কিভাবে ঘর নির্মাণ করা হয়েছে ? এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘এ বিষয়ে আমি কিছুই জানি না।’
বন আইনে সংরক্ষিত বনাঞ্চলে কোন ধরনের স্থাপনা থাকার কথা নয়। সংরক্ষিত বনে ঘর ছাড়াও বনের গাছ কেটে পাচারের অভিযোগও রয়েছে। বন কর্মকর্তা-কর্মচারীদের যোগসাজশে উজাড় হয়ে যাচ্ছে বনাঞ্চল। বন বিভাগের লোকজনের দায়িত্বে অবহেলা ও গাফিলতির কারণে অরক্ষিত হয়ে পড়েছে সংরক্ষিত বনাঞ্চল।

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 300 People

সম্পর্কিত পোস্ট