চট্টগ্রাম বুধবার, ০৬ জুলাই, ২০২২

সর্বশেষ:

১৮ জানুয়ারি, ২০২২ | ৯:৪৭ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

পাম অয়েলে কেমিক্যাল মিশিয়ে বানানো হচ্ছিল সয়াবিন

খোলা পাম অয়েলের সঙ্গে কেমিক্যাল মিশিয়ে সয়াবিন তেল বানিয়ে বাজারে বিক্রি ও বিপণন করায় নগরীর বায়েজিদের একটি তেল কারখানাকে ৩ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়েছে। এছাড়া আরেকটি কারখানায় অভিযুক্তরা পলাতক থাকায় সিলগালা করা হয়েছে ওই কারখানাটি।

মঙ্গলবার (১৮ জানুয়ারি) দুপুরে জাতীয় গোয়েন্দা সংস্থা (এনএসআই) ও ভোক্তা সংরক্ষণ অধিদপ্তরের অভিযানে এ জরিমানা করা হয়। অভিযানে নেতৃত্ব দেন চট্টগ্রাম ভোক্তা অধিকার দপ্তরের সহকারী পরিচালক মো. দিদার হোসেন এবং সহকারী পরিচালক মো. আনিছুর রহমান।

বিষয়টি নিশ্চিত করেন চট্টগ্রাম ভোক্তা অধিকার দপ্তরের সহকারী পরিচালক মো. দিদার হোসেন। পূর্বকোণকে তিনি বলেন, অভিযানে অস্বাস্থ্যকর ও নোংরা পরিবেশে খোলা পাম অয়েলের সঙ্গে কেমিক্যাল মিশিয়ে সয়াবিন তেল বানিয়ে বাজারে বিক্রি ও বিপণন করায় বায়েজিদের হাজী পাড়া ওয়াজেদিয়া এলাকার মেসার্স মিজান এন্টারপ্রাইজকে ৩ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়। এছাড়া প্রতিষ্ঠানটির বিরুদ্ধে নিয়মভঙ্গ করে বিপুল পরিমাণ প্লাস্টিকের বোতল গুদামজাতকরণ, এক নামে ট্রেড লাইসেন্স নিয়ে অন্য প্রতিষ্ঠানের নামে বাজারজাতকরণসহ বিভিন্ন নিয়ম লঙ্ঘনের প্রমাণ পাওয়া যায়।

অন্যদিকে বায়েজিদের নয়ারহাট বঙ্গবন্ধু এভিনিউ সড়কের এস এস অয়েল ট্রেডিংয়ের অভিযুক্তরা পলাতক থাকায় তাদের কারখানায় নোটিশ ঝুলিয়ে আগামীকাল শুনানির দিন ধার্য্য করা হয়। শুনানি শেষে তাদের দণ্ড নির্ধারণ করা হবে।

তিনি আরও বলেন, কারখানাগুলো এক প্রতিষ্ঠানের নামে লাইসেন্স করে অন্য প্রতিষ্ঠানের নামে পণ্য বাজারজাত করছিল। কারখানা দুটির একটিকে নানা অনিয়মের জন্য ৩ লাখ টাকা এবং অন্যটিতে নোটিশ ঝুলিয়ে দেয়া হয়েছে। তাদের কাল বুধবার শুনানির জন্য ডাকা হয়েছে। শুনানি শেষে তাদের জরিমানা করা হবে।

 

পূর্বকোণ/মামুন/পারভেজ

শেয়ার করুন

সম্পর্কিত পোস্ট