চট্টগ্রাম সোমবার, ২৪ জানুয়ারি, ২০২২

৩০ নভেম্বর, ২০২১ | ৯:১৫ অপরাহ্ণ

সীতাকুণ্ড সংবাদদাতা

বাঁশবাড়িয়ায় জাহাঙ্গীর পুনরায় চেয়ারম্যান নির্বাচিত

চট্টগ্রামে সীতাকুণ্ডের বাঁশবাড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদের স্থগিত হওয়া কেন্দ্র দুটিতে (৩ নম্বর ওয়ার্ড ও ৭ নম্বর ওয়ার্ড) উপ-নির্বাচন সম্পন্ন হয়েছে। মঙ্গলবার (৩০ নভেম্বর) সকাল থেকে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কঠোর নিরাপত্তা বলয়ের মধ্যে উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট দেন ভোটাররা।

সরেজমিনে এদিন বাঁশবাড়িয়ার ভোট কেন্দ্র দুটিতে পরিদর্শন করে দেখা যায়, সুষ্ঠু ভোট নিশ্চিত করতে চট্টগ্রামের পুলিশ সুপার এস.এম রশিদুল হকের নেতৃত্বে বিশাল পুলিশ বাহিনী, র‌্যাব-আনসার মোতায়েন রয়েছে। তারা বহিরাগত লোকজনকে বিনাকারণে ভোট কেন্দ্রে প্রবেশে বাধা দিয়ে ভোটারদের নিরাপদে ভোট দিতে সহযোগিতা করেন। ফলে বিনা বাধায় উৎসব মুখর পরিবেশে ভোট দেন ভোটাররা।

এদিন সকাল থেকে প্রায় দুপুর পর্যন্ত সব বয়সী নারী-পূরুষের স্বতঃস্ফূর্ত অংশগ্রহণ ছিলো নির্বাচনে। বিকেলে ভোটগণনা শেষে দেখা যায়, কেন্দ্র দুটিতে নৌকার প্রার্থী আওয়ামী লীগ নেতা মো. শওকত আলী জাহাঙ্গীর পেয়েছেন ১৩৮২ ভোট এবং তার নিকটতম প্রতিদ্বন্ধী বিদ্রোহী প্রার্থী আরিফুল আলম রাজু আনারস প্রতীকে পেয়েছেন ১১৭৫ ভোট।

এর আগে গত ১১ নভেম্বর একই ইউনিয়নের ৭টি কেন্দ্রে নৌকার প্রার্থী পেয়েছিলেন ৬৪২৬ ভোট এবং আনারস প্রতীক পেয়েছিলো ২৯৫৭ ভোট। ফলে আজ নির্বাচন শেষে নৌকার প্রার্থীর মোট ভোট সংখ্যা দাড়ায় ৭৮০৮ ভোট এবং বিদ্রোহী প্রার্থীর মোট ভোট ৪১৩২। এতে শওকত আলী জাহাঙ্গীর প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীকে ৩৬৭৬ ভোটে পরাজিত করে তৃতীয় বারের মতো নির্বাচিত হয়েছেন।

এছাড়া নির্বাচনী ফলাফলে ৩ নম্বর ওয়ার্ডে ইউপি সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন মো. সেলিম উদ্দিন (আপেল) এবং সংরক্ষিত ১ নম্বর ওয়ার্ডের মহিলা সদস্য হন রেজিয়া বেগম (সূর্যমুখী), ৭ নম্বর ওয়ার্ডে ইউপি সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন মো. নাজমুল হোসেন (ফুটবল) এবং সংরক্ষিত মহিলা ৩ নম্বর ওয়ার্ডে সদস্য নির্বাচিত হয়েছেন কোহিনুর বেগম (মাইক)। সীতাকু-ইউপি নির্বাচনের রিটার্নিং অফিসার মো. কামরুল হাসান এসব ফলাফল নিশ্চিত করেন।

প্রসঙ্গত গত ১১ নভেম্বর একযোগে সীতাকুণ্ডের ৯টি ইউপিতে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হলেও বাঁশবাড়িয়া ইউপির ৩ ও ৭ নম্বর কেন্দ্রে ব্যালট ছিনতাই, কেন্দ্র দখল ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে ওই দুটি কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ স্থগিত করা হয়। তবে ওই ইউপির ৭টি কেন্দ্রের ফলাফল ঘোষণা হয়েছিলো। তাতে নৌকার প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর চেয়ে অনেক এগিয়ে থাকলেও স্থগিত কেন্দ্র দুটিতে ইউপি সদস্য ও মহিলা সদস্য প্রার্থী থাকায় ফলাফল ঘোষণা স্থগিত রাখা হয়েছিলো।

 

পূর্বকোণ/সৌমিত্র/মামুন/পারভেজ

 

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 280 People

সম্পর্কিত পোস্ট