চট্টগ্রাম বুধবার, ২৩ জুন, ২০২১

১১ জুন, ২০২১ | ১:১৪ অপরাহ্ণ

সেকান্দর আলম বাবর, বোয়ালখালী

বোয়ালখালীতে চারমাসে ৯ জন নিহত

বোয়ালখালীতে গত চারমাসে বিভিন্ন ঘটনায় অন্ততঃ ৯ জন নিহত হয়েছে। যে কোনো সময়ের তুলনায় এ যেন লাশের মিছিল বোয়ালখালীতে! এ জাতীয় ঘটনার লাগাম টেনে না ধরলে ভবিষ্যতে আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতির চরম অবনতি ঘটবে বলে আশংকা স্থানীয়দের। তারা এজন্য যেকোন পারিবারিক ও সামাজিক বিরোধ আইনি প্রক্রিয়ায় দ্রুত শেষ করার তাগিদ দিয়েছেন।

এ বিষয়ে সমাজসেবক মোহাম্মদ ইউনুস বলেন, নানান অশান্তি থেকে এ ধরণের ঘটনাগুলো ঘটছে। অর্থনৈতিক মুক্তি ও বিচারপ্রার্থীর প্রতি আইনের সঠিক প্রয়োগে এ সমস্যা থেকে অনেকাংশে মুক্তি পাওয়া সম্ভব।  বিষয়টি নিয়ে থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আবদুল করিম জানান, আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি না ঘটলেও এ অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনাগুলোর পর পুরোপুরি ভাল এটা বলা যাবে না।

কোভিডসহ নানা কারণে অর্থনৈতিক, পারিবারিক সামাজিক অস্থিরতা বাড়ছে। কে কখন কি করছে বুঝে শুনে করছে না। প্রতিটি ঘটনায় পুলিশ দ্রুত দায়ীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিয়েছে এবং নিচ্ছে।  খোঁজ নিয়ে জানা যায়, গত ২৬ ফেব্রুয়ারি চরণদ্বীপ শরীফ পাড়ায় ক্রিকেট খেলায় তর্কাতর্কির জেরে এসএস পাইপ দিয়ে কিশোর বেলাল হোসেনকে (১৫) মাথায় আঘাত করে তার চাচাতো ভাই ইদু আলম (২০)। পরদিন চমেক হাসপাতালে তার মৃত্যু হয়। বেলাল ওই এলাকার মুন্সী সারাংয়ের বাড়ির প্রবাসী বজল আহমদের ছেলে। ঘটনার ৫দিন পর মামলার প্রধান আসামি ইদু আলমকে নিজ বসতঘর থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। সে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছে। ১৯ এপ্রিল জমি নিয়ে বিরোধের জেরে পৌরসভার ৯নং ওয়ার্ডের তাজুর মুল্লুকের বাড়িতে প্রতিপক্ষের হামলায় ইছমত আলীর (৫৫) মৃত্যু হয়। তিনি ওই এলাকার মৃত আবুল খায়েরের ছেলে। হত্যাকা-ের ২৬দিন পর এ ঘটনার প্রধান আসামি ফরিদুল আলমকে (৩২) আনোয়ারার চাতুরী চৌমুহনী থেকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

গত ২৫মে রাতে চরখিজিরপুর ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ড পূর্ব চরখিজিরপুর গ্রামের মোবারক আলী ফকিরের বাড়িতে জমি নিয়ে বিরোধে আলমগীর হোসেন ইমন (২৪) নামের এক কলেজ ছাত্রকে খুন করে প্রতিপক্ষ। এ ঘটনায় পুলিশ ৩ জনকে আটক করলেও মূল আসামি খোরশেদ আলমকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি। এনিয়ে এলাকায় ও মহসিন কলেজে মানববন্ধনও হয়। নিহত আলমগীর হোসেন ইমন স্থানীয় আবদুল ছালামের ছেলে। তিনি চট্টগ্রাম মহসিন কলেজে মাস্টার্স (একাউন্টিং) ১ম বর্ষের ছাত্র ছিল।

৭ মে পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ড দরপপাড়ায় ইদ্রিচ চেয়ারম্যানের বাড়ির পুকুরে ভাসমান অবস্থায় ৩৫ বছরের এক অজ্ঞাত মহিলার লাশ পাওয়া যায়। এখনও তার পরিচয় বের করতে পারেনি পুলিশ।

২৩ জানুয়ারি পৌরসভার পশ্চিম গোমদন্ডী আফজাল তালুকদার বাড়িতে মোহাম্মদ ফারুক (২৬) নামে দিনমজুরের ফাঁসিতে মৃত্যু হয়। মোহাম্মদ ফারুক স্থানীয় মোহাম্মদ হারুনের ছেলে। এ নিয়ে নানান কথা থাকলেও মৃত্যুর কারণ এখনও  বের করতে পারেনি পুলিশ।

২ এপ্রিল উপজেলার পোপাদিয়া ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ড বিদগ্রামে জয় সরকার (১৯) নামে এক কিশোর মায়ের সাথে অভিমান করে আত্মহত্যা করে। জয় সরকার স্থানীয় নিরেশ সরকারের পুত্র। পরিবারের দাবি টাকা না পেয়ে সে আত্মহত্যার পথ বেচে নেয়।

১৬ মে পারিবারিক বিরোধের জেরে রহস্যজনকভাবে ঝুলন্ত লাশ পাওয়া যায় প্রবাসী আবদুল মালেকের স্ত্রী লুৎফুর নাহার পুতুলের (২৮)। ঘটনাটি ঘটে চরণদ্বীপ ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ড ফখিরাখালী সাইর মিয়া মেম্বারের বাড়িতে। এনিয়ে শাশুড়ি মনোয়ারা বেগম (৫০), দেবর মো. আইয়ুবের স্ত্রী শাবনুর আকতার (২৫), স্বামী প্রবাসী আবদুল মালেকসহ (৪০) তিনজনকে অভিযুক্ত করে হত্যা প্ররোচণা মামলা দায়ের করেন পুতুলের মা জান্নাতুল ফেরদৌস। তবে এখনও কাউকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ।

২২ মে উপজেলার শ্রীপুর-খরণদ্বীপ ইউনিয়নের খরণদ্বীপ মধ্যমপাড়ায় রনজিত সিংহের বাড়িতে উর্মি দে (২২) নামে এক গৃহবধুর লাশ গাছের সাথে ঝুলন্ত অবস্থায় উদ্ধার করেছে পুলিশ। ঝুলন্ত এই লাশ নিয়ে নানা প্রশ্ন উঠে উর্মির পরিবার থেকে। এটিকে হত্যাকা- বলে দাবি করে উর্মির স্বামী রাজু দে (৩০) ও শাশুড়ি লহ্মী দে (৫৫) এর নাম উল্লেখ করে মামলা দায়ের করে উর্মির পরিবার। এ ঘটনায় পুলিশ উল্লিখিত দুইজনকে গ্রেপ্তার করে।

গত ৯ জুন উপজেলার পূর্ব কালুরঘাট পেট্রোল পাম্প সংলগ্ন দুদু মিয়ার ভাড়া বাসা (মেস) থেকে জামাল উদ্দিন (৪৮) নামে এক শ্রমিকের গলিত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। নিহত জামাল উদ্দিন ফটিকছড়ি তেলপাড়ই ইউনিয়নের মোহাম্মদ সিকদারের বাড়ির মৃত মফজল আহমদের পুত্র। তিনি বোয়ালখালীর খরণদ্বীপ থেকে বিয়ে করেন এবং এক কন্যা সন্তানের জনক। মৃত্যু নিয়ে নিহতের স্ত্রীর অভিযোগের অঙ্গুলি জামালের ভাইয়ের দিকে। পুলিশ এ ঘটনায় প্রাথমিকভাবে অপমৃত্যু মামলা রজু করে।

পূর্বকোণ/এএ

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 196 People

সম্পর্কিত পোস্ট