চট্টগ্রাম রবিবার, ০৭ মার্চ, ২০২১

৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২১ | ৯:৪৩ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

চট্টগ্রামে প্রথমদিনে ভ্যাকসিন নিলো ১০৯০ জন

চট্টগ্রামে প্রথম দিনে নগরে ও ১৪টি উপজেলায় ১ হাজার ৯০ জনকে করোনা ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। যার মধ্যে ৪২৩ জন নগরের এবং ৬৬৭ জন বিভিন্ন উপজেলার। এদিকে ভ্যাকসিন গ্রহণের পর কারো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা যায়নি বলে জানিয়েছেন চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন।

রবিবার (৭ ফেব্রুয়ারি) শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতাল কেন্দ্রে সকাল সাড়ে ১০টায় নিজে ভ্যাকসিন গ্রহণের মাধ্যমে এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন। এরপর একে একে চমেক হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এস এম হুমায়ুন কবীর, চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের (চসিক) প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. সেলিম আকতার চৌধুরী, বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. হাসান শাহরিয়ার কবির, সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বি, জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ বিদ্যুৎ বড়ুয়া, চট্টগ্রাম রেঞ্জের ডিআইজি আনোয়ার হোসেন ভ্যাকসিন গ্রহণ করেন। করোনা পরবর্তী জটিলতা পর্যবেক্ষণের জন্য তাদের বুথের ভেতরে রাখা হয়।

 নগরের ৬টি কেন্দ্রে ও ১৪ টি উপজেলায় দেওয়া হয়েছে ভ্যাকসিন। যারা ভ্যাকসিন নিয়েছেন তারা সাধারণ মানুষকে এ ভ্যাকসিন নিতে উদ্বুদ্ধ করছেন। তারা সারাদিন কোন ধরনের সমস্যার সম্মুখীন হননি বলেও জানান।

সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বি বলেন, ‘চট্টগ্রাম নগরের সাথে সাথে উপজেলাগুলোতেও শুরু হয়েছে করোনা ভ্যাকসিন প্রদান কার্যক্রম। এতে ১৪টি উপজেলায় মোট ৬৬৭ জনকে করোনার ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। যার মধ্যে ৪৮৭ জন পুরুষ ও ১৮০ জন মহিলা।  উপজেলার মধ্যে লোহাগাড়ায় ২০ জন, রাঙ্গুনিয়ায় ৭০ জন, ফটিকছড়িতে ১৮ জন, বাঁশখালীতে ৪০ জন, আনোয়ারায় ৭০ জন, সীতাকুণ্ডে ৩৯ জন, সাতকানিয়ায় ৪০ জন, রাউজানে ১০ জন, মিরসরাইয়ে ৫০ জন, চন্দনাইশে ২০ জন, বোয়ালখালীতে ৫০ জন, হাটহাজারীতে ১৫০ জন, সন্দ্বীপে ২০ জন, পটিয়ায় ৭০ জনকে ভ্যাকসিন দেওয়া হয়েছে। তাদের মধ্যে কোন ধরনের পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা যায়নি বলেও জানান তিনি।

পূর্বকোণ / আরআর

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 236 People

সম্পর্কিত পোস্ট