চট্টগ্রাম রবিবার, ০৭ মার্চ, ২০২১

২৫ জানুয়ারি, ২০২১ | ১:৪৮ অপরাহ্ণ

এস. এম. মোরশেদ মুন্না, নাজিরহাট

গাউছুল আজম মাইজণ্ডারীর ওরশ সম্পন্ন

মাইজভাণ্ডার দরবারে ভক্তের ঢল

লাখো ভক্তের উপস্থিতিতে তরিকায়ে মাইজণ্ডারীর দিকপাল গাউছুল আজম মাইজণ্ডারী হযরত শাহ্সূফি আল্লামা সৈয়দ আহমদ উল্লাহ মাইজণ্ডারী প্রকাশ হযরত কেবলার বার্ষিক ১১৫তম ওরশ শরীফ ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের মধ্যদিয়ে শান্তিপূর্ণ পরিবেশে ফটিকছড়ির মাইজণ্ডার দরবার শরীফে সম্পন্ন হয়।

 

গতকাল রবিবার ওরশের পরিসমাপ্তি ঘটে। দরবারের প্রত্যক মঞ্জিলে আলাদা আলাদাভাবে নিজস্ব পদ্ধতিতে আখেরি মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়। শনিবার গাউছে মাইজণ্ডারীর মাজার গোসল শরীফ, খতমে কোরআন, গিলাপ চড়ানো ও মিলাদের মাধ্যমে ওরশের আনুষ্ঠানিক শুভ সূচনা হয়। ওরশে দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চল হতে ধর্ম, বর্ণ, আবাল বৃদ্ধা বণিতা নারী, পুরুষ শিশুসহ ভক্তরা দরবারে আসেন। ওরশে ভক্তদের মাজার হতে মাজারে ছুটাছুটি করে কোরানখানী, জেয়ারত, মিলাদ, জিকির আযকারের জিকিরে ছেমা ও ভা-ারী গানের মধ্যদিয়ে সময় পার করতে দেখা গেছে।

 

এদিকে তিন দিনব্যাপি ওরশে কোন অপ্রীতিকর ঘটনার কথা শুনা যায়নি। করোনা মহামারীতে দরবারের প্রত্যক মঞ্জিলে স্বাস্থ্যবিধি মেনে রবিবার সন্ধ্যা পরবর্তী পৃথক সময়ে নিজেদের মতো করে আখেরি মোনাজাত কিংবা বিশেষ মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়। গাউছিয়া আহমদিয়া মঞ্জিলের মোন্তাজেম, জিম্মাদার ও সাজ্জাদানশীন, আঞ্জুমানে মোত্তাবেয়ীনে গাউছে মাইজণ্ডারীর কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদের সভাপতি শাহসূফি ডা. সৈয়দ দিদারুল হক মাইজণ্ডারীর আগত জায়েরীন মেহমানদের স্বাস্থ্যবিধি মেনে ভিন্ন ভিন্ন দিনে দরবার শরীফে আসার ব্যবস্থা করেন। ফলে কেন্দ্রীয়ভাবে মিলাদ ও মুনাজাত অনুষ্ঠিত হয়নি।

তিনি ওরশ শরীফে দেশ, জাতি ও বিশ্বমানবতার সর্বাঙ্গীন কল্যাণ ও বিশেষ করে করোনা মহামারী থেকে মুক্তি কামনা করে ভার্চুয়াল মোনাজাত পরিচালনা করেন। সাথে ছিলেন ওরশ শরীফ সুপারভিশন কমিটির প্রধান সমন্বয়ক শাহজাদা সৈয়দ হোসেইন রাইফ নুরুল ইসলাম রুবাব মাইজভা-ারী। ওরশ শরীফ উপলক্ষে সাজ্জাদানশীন-এ-দরবারে গাউছুল আজম আলহাজ হযরত মওলানা শাহসূফি সৈয়দ এমদাদুল হক মাইজণ্ডারী (মা.জি.আ) এঁর আয়োজন ও ব্যবস্থাপনায় ১০ দিনব্যাপী বিভিন্ন কর্মসূচি বাস্তবায়িত হয়।

 

পূর্বকোণ/পি-মামুন

শেয়ার করুন
  • 487
    Shares
The Post Viewed By: 1385 People

সম্পর্কিত পোস্ট