চট্টগ্রাম শনিবার, ১৬ জানুয়ারি, ২০২১

সর্বশেষ:

নাজিরহাট হানাদার মুক্ত দিবস আজ

৯ ডিসেম্বর, ২০২০ | ২:০৮ অপরাহ্ণ

খোরশেদ আলম শিমুল

ওইদিন পাকবাহিনীর অতর্কিত হামলায় শহীদ হন ১১ জন বীর মুক্তিযোদ্ধা

নাজিরহাট হানাদার মুক্ত দিবস আজ

উত্তর হাটহাজারীর নাজিরহাট হানাদার মুক্ত দিবস আজ বুধবার (৯ ডিসেম্বর)। ১৯৭১ সালের এই দিনে উত্তর চট্টগ্রামের অন্যতম রণাঙ্গন হাটহাজারী উপজেলার নাজিরহাট পাক হানাদার বাহিনীর সাথে মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মুখ যুদ্ধ হয়। ওইদিন ভোরে মুক্তিযোদ্ধাদের হামলায় টিকতে না পেরে পাকহানাদার বাহিনী পিছু হটে। পাকবাহিনী চলে যাওয়ার পর শুরু হয় মুক্তিকামী ছাত্র-জনতা এবং মুক্তিযোদ্ধাদের আনন্দ উল্লাস।

দিনভর হাটহাজারী ও ফটিকছড়ির বিভিন্ন এলাকা থেকে মুক্তিযোদ্ধা এবং ইস্টবেঙ্গল রেজিমেন্টের জওয়ানরা চাঁদের গাড়িতে করে কামান এবং অস্ত্রসস্ত্রে সজ্জিত হয়ে দেশের মানচিত্র অংকিত পতাকা নিয়ে আনন্দ উল্লাস করে নাজিরহাটে সমবেত হন। সেই দিন চলছিল বিজয়ের উৎসব।

বীর মুক্তিযোদ্ধা ড. মোহাম্মদ জাহিদ হোসেন শরিফ পূর্বকোণকে জানান, পাক হানাদার বাহিনী পিছু হটার পর ওইদিন (৯ ডিসেম্বর) হাটহাজারী ও ফটিকছড়ি উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে মুক্তিযোদ্ধা এবং ইস্ট বেঙ্গল রেজিমেন্টের জোয়ানরা চাঁদের গাড়িতে করে অস্ত্র সস্ত্রে সজ্জিত হয়ে দেশের মানচিত্র অংকিত পতাকা নিয়ে আনন্দ উল্লাস করে হাটহাজারী উপজেলার নাজিরহাটে সমবেত হয়। তবে পলাতক পাকহানাদার বাহিনী ওইদিন সন্ধ্যায় হাটহাজারীর অদুদিয়া মাদ্রাসার সামনে থেকে ৩/৪টি বাসে করে নাজিরহাটে আসে। তারা উল্লাসরত মুক্তিযোদ্ধা ও নিরীহ জনতার উপর অতর্কিত হামলা চালায়। শুরু হয় মুক্তিযোদ্ধাদের সাথে সম্মুখ যুদ্ধ। ওই যুদ্ধে পাক হানাদার বাহিনী বাংলার দামাল ছেলেদের কাছে পরাস্ত হয়।

জানা যায়, এ যুদ্ধে অজ্ঞাতনামা একজনসহ ১১ জন শহীদ হন। মুক্তিযোদ্ধারা হলেন নায়েক তফাজ্জল হোসেন (বরিশাল), সিপাহী নুরুল হুদা (কুমিল্লা), সিপাহী অলি আহম্মদ (খুলনা), সিপাহী নুরুল ইসলাম (সন্দ্বীপ), সিপাহী মানিক মিয়া (চট্টগ্রাম), ফোরখ আহম্মদ (নাজিরহাট), হাসিনাখাতুন (নাজিরহাট), আবদুল মিয়া (নাজিরহাট), নুরুল আফছার (কুমিল্লা), মুক্তিযোদ্ধা মুজিবুল হক (ফরহাদাবাদ)। এরপর পাক হানাদার বাহিনী ১৩ ডিসেম্বর পর্যন্ত নাজিরহাট, হাটহাজারী এবং ফটিকছড়ির বিভিন্ন এলাকায় অগ্নিসংযোগ-লুটতরাজ,নাজিরহাট হালদা নদীর সেতু ধ্বংস, হত্যাযজ্ঞসহ নারকীয় কর্মকা- চালায়।

হাটহাজারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ রুহুল আমিন পূর্বকোণকে জানান, নাজিরহাট হানাদার মুক্ত দিবস উপলক্ষে এ বছর সংক্ষিপ্ত আকারে করোনার কারণে বুধবার সকাল ৯টায় খতমে কোরআন ও মিলাদ মাহফিলের আয়োজন করা হয়েছে।

 

 

 

 

পূর্বকোণ/পি-আরপি

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 100 People

সম্পর্কিত পোস্ট