চট্টগ্রাম বুধবার, ২০ জানুয়ারি, ২০২১

সর্বশেষ:

৪ জুন, ২০১৯ | ৮:০২ অপরাহ্ণ

সীতাকুণ্ড সংবাদদাতা

বিদেশী পিস্তল, দুটি ওয়ান শুটার গান ও গুলি উদ্ধার

 সীতাকুণ্ডে র‌্যাবের সাথে বন্ধুক যুদ্ধে দুই ডাকাত নিহত

সীতাকুণ্ডে র‌্যাবের সাথে বন্ধুক যুদ্ধে দুই যুবক নিহত হয়েছে। গতকাল সোমবার রাত আনুমানিক সাড়ে ১২টায় উপজেলাধীন ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কুমিরা বাইপাস সড়কে এ ঘটনা ঘটে। র‌্যাবের দাবী নিহতরা দুই জনই রোড ডাকাত। পুলিশ ও র‌্যাব ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছে। তাদের নাম পরিচয় নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সোমবার রাত আনুমানিক সাড়ে ১২টার দিকেে উপজেলার কুমিরা এলাকার ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে হটাৎ বেশ কিছু গুলির শব্দ শোনা যায়। এরপরেই সেখানে যান চলাচল থেমে গিয়ে যানজট সৃষ্টি হয়। এসময় র‌্যাবের একটি দল এলাকাটি ঘিরে রাখে।

জানতে চাইলে কুমিরা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মো. মোর্শেদুল আলম চৌধুরী বলেন, ঘটনার সময় আমি চট্টগ্রাম থেকে ঐ পথে ফিরছিলাম। ভাটিয়ারী থাকা অবস্থায় এলাকা থেকে করা এক ফোনে জানতে পারি কুমিরা বাইপাস সড়কে র‌্যাবের সাথে কারো বন্ধুকযুদ্ধ চলছে। পরে ঐ এলাকায় এসে দেখতে পাই কালো গেঞ্জি পড়া এক যুবকের গুলিবিদ্ধ লাশ রাস্তার পাশে পড়ে আছে। র‌্যাবের একটি দল ঐ এলাকাটি ঘিরে রেখেছে। পরে জানা যায় সেখানে দুই যুবকের লাশ পাওয়া গেছে।

র‌্যাব-৭ এর সহকারী পরিচালক মাশকুর রহমান জানান, সোমবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে একটি ব্যক্তিগত গাড়ি ডাকাতি করছিলো একদল ডাকাত। র‌্যাবের একটি টহল টিম ঐ এলাকা অতিক্রম করার সময় তাদেরকে দেখে আটকের চেষ্টা করলে তারা গুলি করতে শুরু করে। এতে র‌্যাবও পাল্টা গুলি চালালে দুই যুবক মারা যায়। তাদের একজনের বয়স আনুমানিক ২২ এবং অপরজনের ৩৭ এর মত। ঘটনাস্থল থেকে একটি বিদেশী পিস্তল, দুটি ওয়ান শুটারগান, ৩১ রাউন্ড গুলি, দা-ছুরি ইত্যাদি উদ্ধার করা হয়েছে। নিহতদের পরিচয় তাৎক্ষনিকভাবে জানা যায়নি।

সীতাকুণ্ড থানার ওসি (তদন্ত) মোঃ আফজাল হোসেন বলেন, সোমবার গভীর রাতে সীতাকুণ্ডের কুমিরা বাইপাস সড়কে র‌্যাবের সাথে বন্ধুক যুদ্ধে দুই রোড ডাকাত নিহত হয়েছে। একজনের মাথা ও অন্যজনের বুকে গুলিবিদ্ধ হয়ে নিহত হয়েছে তারা। ঐ যুবকদের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য প্রেরণ করা হয়েছে।

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 460 People

মন্তব্য দিন :

সম্পর্কিত পোস্ট