চট্টগ্রাম সোমবার, ১৮ অক্টোবর, ২০২১

সর্বশেষ:

২৪ মে, ২০১৯ | ২:৫০ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

নগরীতে পৃথক ৩ অভিযান পাঁচ ছিনতাইকারী গ্রেপ্তার

নগরীতে পৃথক তিনটি অভিযান চালিয়ে পাঁচ ছিনতাইকারীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এরমধ্যে কোতোয়ালী থানা পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে চার ছিনতাইকারীকে। ডবলমুরিং থানা পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে একজনকে।
পুলিশ জানায়, নগরীর ডবলমুরিং থানাধীন আগ্রাবাদ সাউথল্যান্ড সেন্টারের সামনে থেকে অস্ত্রসহ এক ছিনতাইকারীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। তার নাম সাইফুল ইসলাম ইমন (২৩)। তিনি গোপালগঞ্জের গোপিনাথপুর এলাকার মো. ছিদ্দিকের পুত্র বলে জানা গেছে। তার কাছ থেকে একটি এলজি উদ্ধার করা হয়েছে। পুলিশ জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে গত বুধবার দিবাগত রাত ২ টার দিকে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়। ইমন তার এক সহযোগীকে নিয়ে ছিনতাই করার জন্য সেখানে অপেক্ষা করছিল। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে অপর ছিনতাইকারী পালিয়ে যায়। পালানোর চেষ্টাকালে ইমন সামান্য আহত হয়েছে। তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।
এদিকে, নগরীর কোতোয়ালী থানা পুলিশ পৃথক অভিযান চালিয়ে চার ছিনতাইকারীকে গ্রেপ্তার করেছে।
পুলিশ জানায়, গত বুধবার দুপুরে নিউ মার্কেট বাটা বাজারের সামনে গতিবিধি সন্দেহ হওয়ায় দুই ব্যক্তিকে দাঁড়াতে বলে পুলিশ। কিন্তু তারা পালানোর চেষ্টা করে। এসময় পুলিশ মো. আজাদ হোসেন প্রকাশ সাদ্দাম (১৯) এবং প্রদীপ দে (৪০) নামের দুই ছিনতাইকারীকে আটক করে। তাদের কাছ থেকে দুটি টিপ ছুরি উদ্ধার করা হয়। ধৃত সাদ্দাম (১৯) চাঁদপুর জেলার ফরিদগঞ্জ থানাধীন লক্ষ্মীপুর ইউনুস বেপারি বাড়ির নুর মোহাম্মদের পুত্র এবং প্রদীপ দে (৪০) কক্সবাজার জেলার চকরিয়া থানাধীন দিঘির পানখালী সোনা মহাজনের বাড়ির মৃত সোনারাম দে’র পুত্র।
তাদের দেয়া তথ্যমতে, পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে আসামিরা স্বীকার করে ছিনতাইয়ের উদ্দেশ্যে তারা সেখানে অবস্থান করছিল। তাদের বিরুদ্ধে এসআই কে এম তারিকুজ্জামান বাদি হয়ে অস্ত্র আইনে মামলা হয়েছে।
এছাড়া বুধবার রাত পৌনে ১০টার দিকে, আন্দরকিল্লা জেনারেল হাসপাতালের সামনে একজনের মোবাইল ফোন ছিনতাই করার সময় পুলিশ দুইজনকে গ্রেপ্তার করে। আসামিরা হচ্ছে, কুমিল্লার মুরাদনগর থানাধীন রিক্সাওয়ালা শফি মামার বাড়ির মো. জাহাঙ্গীরের পুত্র মো. বাবলু (২৩) এবং একই থানাধীন কৈগ্রামের মো. জসিমের পুত্র ফয়সাল (১৯)। ধৃত চার ছিনতাইকারীর বিরুদ্ধে বিভিন্ন থানায় একাধিক মামলা রয়েছে।

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 326 People

সম্পর্কিত পোস্ট