চট্টগ্রাম বুধবার, ১৯ ফেব্রুয়ারী, ২০২০

সর্বশেষ:

১৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ | ৬:৩৪ পূর্বাহ্ণ

বাসন্তী রঙে সাজলো বইমেলা

নতুন বর্ষপঞ্জি অনুযায়ী বসন্তের আগমন একদিন পরে হলেও বসন্ত ঠিকই ধরা দিয়েছে বইমেলায়। বাসন্তী সাজে রমণীরা। মাথায় কাচা ফুলের রিং। সন্ধ্যে ঘনাতেই আমেজটা যেন আরও একটু বেড়ে যায়। চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের উদ্যোগে আয়োজিত বইমেলা চারদিনেই বেশ জমে উঠেছে। বসন্ত উৎসব ও ভালোবাসা দিবসে মেলা যেন পরিপূর্ণতা পেয়েছে। এরের বইমেলায় বিভিন্ন প্রকাশনীর স্টলের পাশাপাশি স্থান পেয়েছে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন বিদ্যানন্দ ফাউন্ডেশনের স্টল ‘১ টাকায় আহার’। পরিত্যক্ত ও প্রকৃতির ক্ষতিকারক সব প্লাস্টিক দ্রব্যকে সৃজনশীলতায় সাজিয়ে তৈরি করা হয়েছে স্টলটি। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের সহায়তায় সবাই জানেন প্রতিষ্ঠানটির উদ্দেশ্য। তাই দর্শনার্থীদের আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দুতে পরিণত হয়েছে এ স্টলটি। স্টলে বই দেখছিলেন ফাইরুজ জান্নাত। কথা হয় তার সঙ্গে। তিনি বলেন, ‘আর দশটা স্টলের মতো হলেও উদ্দেশ্যটা বেশ মহৎ। বই বিক্রির টাকা থেকে জুটবে অনেক সুবিধাবঞ্চিত শিশুর আহার। তাই নিজে কিছু করতে না পারলেও বই কিনে থাকতে চাই তাদের পাশে। স্টলে কাজ করছেন কয়েকজন বিক্রয়কর্মী। ক্রেতাদের বই কিনতে উদ্বুদ্ধ করছেন তারা। জানাচ্ছেন প্রতিষ্ঠানের উদ্দেশ্যের কথা। কথা হয় এক বিক্রয়কর্মীর সঙ্গে। নাম জানাতে অনিচ্ছা পোষণ করলেও জানিয়েছেন তাদের মহৎ উদ্দেশ্যের কথা। তিনি বলেন, ‘সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের জন্য কিছু করতে পারা আমাদের লক্ষ্য। বই বিক্রির টাকা ব্যয় হবে শিশুদের আহার যোগাতে। তাই হয়তো অন্যদের কাছে বই বিক্রি ব্যবসা হলেও আমাদের কাছে একটি বই বিক্রি করার মানে শিশুদের মুখে অন্ন তুলে দেওয়া।’-বাংলানিউজ
প্রসঙ্গত, এবারের বইমেলায় ১৩০টি প্রকাশনী এবং বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের ২১৫টি স্টল স্থানে পেয়েছে। প্রতিদিন বিকেল ৩টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত চলছে বইমেলা। শুক্রবার (১৪ ফেব্রুয়ারি) ছুটির দিন সকাল ১০টা থেকে শুরু হয় মেলায় বই বিক্রির উৎসব।

The Post Viewed By: 33 People

সম্পর্কিত পোস্ট