চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ২৪ নভেম্বর, ২০২০

৭ মে, ২০১৯ | ১২:৩৫ পূর্বাহ্ণ

স্পোর্টস ডেস্ক

কৌশলে দোষ দেখছেন ব্যাটিং কোচ

সাফল্যের উপায় জানালেন নিল ম্যাকেঞ্জি

আয়ারল্যান্ডের শীতে জবুথবু বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল। গরম থেকে হুট করে শীতের আবহাওয়ায় মানিয়ে নিতে অসুবিধা হচ্ছে তাদের। তবে বাংলাদেশ দলের ব্যাটিং কোচ নিল ম্যাকেঞ্জি মনে করছেন, শীত নয় আয়ারল্যান্ডের উইকেটই তামিম-লিটনদের জন্য বেশি চ্যালেঞ্জিং। আয়ারল্যান্ডে ত্রিদেশীয় সিরিজ খেলার আগে একটি প্রস্তুতি ম্যাচ খেলেছে বাংলাদেশ। গা গরমের ওই ম্যাচে আয়ারল্যান্ড উলভসের কাছে ৮৮ রানে হেরেছেন মাশরাফিরা। তবে দক্ষিণ আফ্রিকার সাবেক এই ব্যাটসম্যান বলছেন, বাংলাদেশ দলের অভিজ্ঞ ক্রিকেটাররা জানেন কোন কন্ডিশনে কিভাবে খেলতে হয়। তিনি বলেন, ‘সমস্যা শীতে নয়, মূলত এখানকার কন্ডিশনই চ্যালেঞ্জিং।’ এছাড়া আয়ারল্যান্ডের পেস-বাউন্সি উইকেটে খেলার জন্য বাংলাদেশ দলের টেকনিকে কোন ঘাটতি নেই। বরং কৌশল প্রয়োগ দরকার বললেন তিনি, ‘বলের লাইন বদলেছে, লেন্থ বদলেছে, বদলেছে গতি। ব্যাটসম্যানদের রান করার সুযোগ বদলে গেছে। সুতরাং শীত নয় বরং উইকেটের কন্ডিশন এবং ভিন্ন ঘরানার বোলারদের বিপক্ষে রান তুলতে অসুবিধা হচ্ছে দলের।’ বাংলাদেশ ব্যাটসম্যানরা প্রস্তুতি ম্যাচে রান পাননি। আবার বোলাররাও রান আটকাতে পারেননি। আয়ারল্যান্ডের উইকেটে রান হয় বেশি। তারপরও বাংলাদেশ ব্যাটসম্যানরা ভালো শুরু পেয়েও বড় ইনিংস গড়তে পারেননি। এ নিয়ে ম্যাকেঞ্জি বলেন, ‘টেকনিক নয় বাংলাদেশ দলের ব্যাটসম্যানদের কৌশল বিপক্ষে গেছে। তাদের সামর্থ্য তারা প্রয়োগ করতে পারেনি।’ ইংল্যান্ড বিশ্বকাপে ফোকাস বাংলাদেশের। এ নিয়ে সাবেক এই ব্যাটসম্যান জানান, ইংল্যান্ডের উইকেট দক্ষিণ আফ্রিকা কিংবা অস্ট্রেলিয়ার মতো অতো দ্রুতগতির না। বল স্লো আসে। স্লোয়ার বাউন্স বেশি হয়। এখানে বল যত দেরিতে খেলা যাবে তত ভালো করা যাবে বলে মত তার। এছাড়া বাংলাদেশ দলের প্রধান কোচ ইংলিশ। বোলিং কোচ কোর্টলি ওয়ালস দীর্ঘদিন ইংল্যান্ডে খেলেছেন। ব্যাটিং কোচ ম্যাকেঞ্জিরও পাঁচ বছর ইংল্যান্ডে খেলার অভিজ্ঞতা আছে। সব মিলিয়ে তারা দলকে তাদের সামর্থ্যরে সর্বোচ্চটা দিয়ে সহায়তা করবেন বলে উল্লেখ করেন। এই মুহূর্তে বাংলাদেশ দলের খেলোয়াড়দের দক্ষতায় তেমন ঘাটতি দেখছেন না নিল ম্যাকেঞ্জি।
ব্যাটিং কোচ বলেন, ‘দলের খেলোয়াড়রা যথেষ্ট মানসম্পন্ন। উইকেটে সময় কাটাতে পারলে তাঁরা সাফল্যের মুখ দেখবেই। এখন আগামী তিন সপ্তাহে এখানে যতটা সম্ভব মানিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করতে হবে।’

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 306 People

সম্পর্কিত পোস্ট