চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ২৬ নভেম্বর, ২০২০

৩০ অক্টোবর, ২০২০ | ৫:০৯ অপরাহ্ণ

অনলাইন ডেস্ক

ফ্রান্সের গির্জায় হামলাকারী তিউনিসিয়া থেকে এসেছিলেন কয়েকদিন আগে

ফ্রান্সের নিস শহরের গির্জায় হামলা চালিয়ে ৩ জনকে মেরে ফেলা তিউনিসিয়ার নাগরিক গত মাসেই তিউনিসিয়া থেকে এসেছিলেন। বৃহস্পতিবার ফ্রান্সের সরকারি কর্মকর্তারা এই তথ্য জানিয়েছেন।

আজ শুক্রবার (৩০ অক্টোবর) ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির খবরে বলা হয়, গত মাসে অভিবাসীদের নৌকায় করে ইতালির লামপেদুসা দ্বীপে পৌঁছান ২১ বছর বয়সী ওই তরুণ । আর সেখান থেকে আসেন ফ্রান্সে। তাঁর কাছে ইতালিয়ান রেড ক্রসের নথি ছিল। পুলিশের গুলিত তিনি গুরুতর আহত হয়েছেন। হামলাকারীর নাম ব্রাহিম আউইসাউই বলে ফরাসি সূত্র থেকে জানা যায়।

স্থানীয় পুলিশ বলছে, নিস শহরের নটর ডেম বাসিলিকায় বৃহস্পতিবারের ওই হামলায় এক নারীসহ তিনজন নিহত হন। তাঁদের মধ্যে ওই নারীকে শিরশ্ছেদ করা হয়। হামলার পর পরই সন্দেহভাজন হামলাকারীকে আটক করেছে পুলিশ।

হামলার পর ঘটনাস্থল পরিদর্শনে যান ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল মাখোঁ। এই সময় তিনি বলেন, সরকারি ভবনগুলো রক্ষায় শত শত সেনা মোতায়েন করা হয়েছে। কৌঁসুলিরা এই হামলার ঘটনার তদন্ত শুরু করেছেন। ফ্রান্স পুরো দেশে সর্বোচ্চ সতর্কতা জারি করেছে।

ফ্রান্সের সন্ত্রাসবিরোধী প্রধান কৌঁসুলি জেন ফ্রান ও রিকার্দো বলেছেন, হামলাকারীর কাছ থেকে এক পবিত্র কোরআন, দুটি মোবাইল, ১২ ইঞ্চির একটি ছুরি পাওয়া গেছে। তিনি আরও বলেন, হামলাকারীর ফেলে যাওয়া একটি ব্যাগ পাওয়া গেছে হামলার স্থলে। ব্যাগের পাশেই দুটি ছুরি পড়েছিল যেগুলো হামলায় ব্যবহার করা হয়নি।

নিহত তিনজনের একজন বাসিলিকার তত্ত্বাবধায়ক। এ ঘটনায় আরও কয়েকজন আহত হয়েছেন বলে জানা গেছে। তবে আহতদের সংখ্যা এখনো জানা যায়নি।

ফ্রান্সের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এ ঘটনার পর স্থানীয় জনসাধারণকে হামলাস্থল এড়িয়ে চলতে বলা হয়েছে। এ ঘটনায় ওই মন্ত্রণালয়ের জরুরি সভা ডাকা হয়েছে।

উল্লেখ্য, ১৬ অক্টোবর প্যারিসের শহরতলিতে এক শিক্ষককে গলা কেটে হত্যা করা হয়। নিহত ওই শিক্ষক রাষ্ট্রবিজ্ঞান পড়াতেন। ‘মতপ্রকাশের স্বাধীনতা’ ক্লাসে তিনি শিক্ষার্থীদের মহানবী (সা.)-এর কার্টুন দেখিয়েছিলেন। যেখানে মহানবী (সা.) নিয়ে ব্যঙ্গ করা হয়। এ ঘটনাকে ঘিরে ফ্রান্সের প্রেসিডেন্ট এমানুয়েল মাখোঁ মন্তব্য নিয়ে মুসলিম বিশ্বে ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে।

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 104 People

সম্পর্কিত পোস্ট