চট্টগ্রাম শনিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর, ২০২০

এবার পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভায় উঠছে সিএএ বিরোধী প্রস্তাব

২৭ জানুয়ারি, ২০২০ | ৫:৩৯ পূর্বাহ্ণ

এবার পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভায় উঠছে সিএএ বিরোধী প্রস্তাব

ইন্টারন্যাশনাল ডেস্ক : ভারতে সবার আগে কেরালা, তারপর পাঞ্জাব এবং রাজস্থানে নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন (সিএএ) বিরোধী প্রস্তাব পাসের পর এবার পশ্চিমবঙ্গের বিধানসভাও একই পদক্ষেপ নিতে চলেছে।
এনডিটিভি জানিয়েছে, ২৭ জানুয়ারি পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য বিধানসভায় এক বিশেষ অধিবেশনে সিএএ প্রত্যাহারের প্রস্তাব পাস করাতে চলেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।
গতকাল সোমবার দুপুর ২টা নাগাদ রাজ্য বিধানসভায় সিএএ বিরোধী প্রস্তাব পেশ করবেন মমতা। সব রাজনৈতিক দলকেই এ প্রস্তাব সমর্থনের অনুরোধ জানিয়েছেন এই তৃণমূল কংগ্রেস নেত্রী।
দীর্ঘদিন ধরেই সিএএ বিরোধী আন্দোলন চালিয়ে আসছেন মমতা। সিএএ নিয়ে তার আপত্তির কথা সরাসরি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকেও জানিয়েছেন তিনি।
সিএএ কিছুতেই প্রত্যাহার করা হবে না বলে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ হুঁশিয়ারি দেওয়ার পরই তৃণমূল কংগ্রেস নেত্রী মমতা প্রস্তাবটি পাসে বদ্ধপরিকর হন।
তবে কেবল সিএএ-ই নয়, জাতীয় নাগরিকপঞ্জী এনআরসি এবং জাতীয় জনসংখ্যাপঞ্জী এনপিআর নিয়েও আপত্তি আছে মমতার। তার অভিযোগ, এনআরসি নিয়ে দুমুখো নীতি নিয়েছে ভারতীয় জনতা পার্টি (বিজেপি)।
সরকারের ওইসব বিতর্কিত পদক্ষেপ নিয়ে অনেক দিন থেকেই ভারতে বিরোধিতা চলে আসছে। গতবছর ডিসেম্বরে নাগরিকত্ব সংশোধনী আইন হওয়ার পর ভারতজুড়ে বিক্ষোভ-সংঘর্ষের আগুন জ্বলে ওঠে।
বাংলাদেশ, পাকিস্তান ও আফগানিস্তান থেকে গিয়ে ভারতে শরণার্থী হওয়া অমুসলিমদের নাগরিকত্ব দেওয়ার লক্ষ্যে করা হয়েছে সিএএ। হিন্দু, খ্রিস্টান, শিখ, জৈন, বৌদ্ধ ও পার্সি সম্প্রদায়ের শরণার্থীদের ভারতীয় নাগরিকত্ব দেওয়ার কথা বলা আছে এ আইনে। তবে মুসলিমরা এতে না থাকায় আইনটি সাম্প্রদায়িক বলে তীব্র সমালোচনা হয়ে আসছে।
ভারতজুড়ে সিএএ’র পাশাপাশি এনআরসি নিয়ে এখনো আন্দোলন তুঙ্গে। বিভিন্ন রাজ্য এ আইন কার্যকর না করার ঘোষণা দিচ্ছে।

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 76 People

সম্পর্কিত পোস্ট