চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ১৯ জানুয়ারি, ২০২১

পুষ্টিগুণে ভরপুর খেজুরের গুড়

৫ ডিসেম্বর, ২০২০ | ৫:৩৩ অপরাহ্ণ

হেলথ ডেস্ক

পুষ্টিগুণে ভরপুর খেজুরের গুড়

শীতের সময় খেজুরের গুড়ের পিঠা-পায়েস না হলে যেন জমেই না। শীতকালীন এ খাবারটি কম বেশি সবাই পছন্দ করে। খেজুরের গুড় খেতে যেমন মজার, তেমনি মানব শরীরের জন্য এতে রয়েছে অসাধারণ পুষ্টিগুণ। শীতের সময় বাজারেও এটি অনেক বেশি কিনতে পাওয়া যায়। কিন্তু অনেক সময় বাজারে খেজুরের গুড় বলে আখের গুড় বিক্রি করেন বিক্রেতারা। তাই কেনার সময় একটু সচেতনতা অবলম্বন করলেই চেনা যাবে কোনটি খেজুরের গুড়।

খেজুরের গুড়ের পুষ্টিগুণ : খেজুরের গুড়ে প্রচুর পরিমাণে ক্যালসিয়াম, আয়রন ও ম্যাগনেশিয়াম রয়েছে। যারা রক্ত স্বল্পতায় ভুগে, তারা খেজুরের গুড় খেলে ভালো উপকার পাবে। হাড় ও বাতের ব্যথা কমাতে খেজুরের গুড় বেশ উপকারী। খেজুরের গুড় শরীরের ভেতর থেকে চুল ও ত্বকের উজ্জ্বলতা বাড়াতে সাহায্য করে। তবে যাদের ডায়াবেটিস আছে, তাদের খেজুরের গুড় খাওয়া একেবারেই নিষেধ। খেজুরের গুড় কোষ্ঠকাঠিন্যের যম। এটি হজম শক্তি বাড়ায়। সেই সঙ্গে এর ভিতরে থাকা শর্করা কোষ্ঠও সাফ করে। তাই যারা দীর্ঘ দিন কোষ্ঠকাঠিন্যের সমস্যায় ভোগে, তারা রোজ এক চামচ গুড় খেলে দারুণ উপকার পাবে। লিভার ভাল রাখতে সাহায্য করে খেজুরের গুড়। এটি লিভার থেকে যাবতীয় টক্সিন দূর করে শরীরকে সুস্থ রাখে। সর্দি-কাশি তাড়াতে সাহায্য করে খেজুরের গুড়। গুড় যেহেতু লিভার থেকে টক্সিন বের করে দেয়, সেই জন্য রক্তও সাফ থাকে।

পাশাপাশি অন্ত্র, ফুসফুস এবং শরীরের অভ্যন্তরের অনেক যন্ত্রই পরিষ্কার রাখে খেজুরের গুড়। মেনস্ট্রুয়াল ব্যথা কমায়। যাদের মেনস্ট্রুয়েশনের (পিরিয়ড) সময় পেটে ব্যথা হয়, তারা সেই সময়ে গুড় খেলে সঙ্গে সঙ্গে স্বস্তি পাবেন। গুড় শরীরের মিনারেলের ঘাটতি পূরণ করে। ১০ গ্রাম গুড় প্রায় ১৬ মিলিগ্রাম মিনারেলের জোগান দেয়। গুড় যেহেতু শরীর ঠা-া রাখে, সেহেতু আপনা থেকেই শ্বাসকষ্টে স্বস্তি মেলে। এজমা, ব্রঙ্কাইটিসের মতো অসুখে রোজ গুড় খেলে উপকার পাওয়া যায়। শরীরের মেদ গলানোর পাশাপাশি শরীরের ক্লান্তি দূর করতে সাহায্য করে খেজেুরের গুড়।

আসল খেজুরের গুড় চেনার উপায় : অনেক সময় খেজুরের গুড়কে বেশি মিষ্টি করার জন্য গুড়ে মেশানো হয় কৃত্রিম চিনি। কখনো বা রঙ আকর্ষণীয় করতে মেশানো হয় কৃত্রিম রঙ। তাই খেজুরের গুড় চেনার উপায় হলো, কেনার সময় একটু গুড় ভেঙে মুখে দিয়ে দেখুন। জিভে নোনতা স্বাদ লাগলে বুঝবেন এটি খাঁটি গুড় নয়। গুড় কেনার সময় গুড়ের ধারটা দুই আঙ্গুল দিয়ে চেপে দেখবেন। যদি নরম লাগে, তাহলেই এটি আসল গুড়। যদি গুড় একটু হালকা তিতা স্বাদের হয়, তবে বুঝতে হবে গুড় বেশিক্ষণ ধরে জ্বাল দেয়া হয়েছে। তাই একটু তিতা স্বাদ হয়। এমনটা হলে গুড় খুব একটা ভালো হবে না।

 

 

পূর্বকোণ/পি-আরপি

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 147 People

মন্তব্য দিন :