চট্টগ্রাম বৃহষ্পতিবার, ২৮ মে, ২০২০

সর্বশেষ:

ওমানে অগ্নিদগ্ধ হয়ে স্বপ্নভঙ্গ হাটহাজারীর যুবকের

১৬ এপ্রিল, ২০২০ | ১১:৩৩ অপরাহ্ণ

হাটহাজারী সংবাদদাতা

ওমানে অগ্নিদগ্ধ হয়ে স্বপ্নভঙ্গ হাটহাজারীর যুবকের

চট্টগ্রামের হাটহাজারীর রুবেল (২৬) পেশায় একজন ইলেকট্রনিক্স মিস্ত্রী। মাত্র ছয় মাস আগে জীবিকার তাগিদে পরিবারের সুখের আশায় সবাইকে ছেড়ে মধ্যপ্রাচ্যের ওমানে গমন করেন তিনি। চলতি বছরের গত ২৯ মার্চ রাত ৮টার মালিকের বাড়িতে সেপটিক ট্যাংকে কাজ করার সময় অগ্নিদগ্ধ হয়ে পুরো শরীরের এক তৃতীয়াংশ ঝলসে যায় তার। মাস্কাটের হাসপাতালে ১৫ দিন আইসিউতে চিকিৎসাধীন থাকার পর গত সোমবার (১৩ এপ্রিল) বিকেলে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি।

নিহত রুবেল হাটহাজারী পৌরসভার ৭ নম্বর ওয়ার্ড আদর্শগ্রাম উত্তর পাহাড় দুলালের দ্বিতীয় পুত্র। তার স্ত্রী ও এক দুই বছরের কন্যাশিশু রয়েছে। মৃত্যুর সংবাদ পেয়ে তার পরিবারে চলছে শোকের মাতম।

সূত্রে জানা যায়, গত ২৯ মার্চ রাত ৮টার মালিকের বাড়িতে সেপটিক ট্যাংকে কাজ করছিলেন রুবেল। এ সময় অগ্নিদগ্ধ হয়ে পুরো শরীরের এক তৃতীয়াংশ ঝলসে যায় তার। দ্রুত স্থানীয় একটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলেও লকডাউনের কারণে কর্তৃপক্ষ তাকে দ্রুত মাস্কাটের একটি হাসপাতালে পাঠান। সেখানে ১৫ দিন আইসিউতে চিকিৎসাধীন থাকার পর গত সোমবার (১৩ এপ্রিল) বিকেলে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন রুবেল।

বিষয়টি নিশ্চিত করে তার গ্রামের সহপাঠী মোরশেদ কান্না জড়িত কন্ঠে বলেন, রুবেল কিছুদিনের মধ্যে তার কর্মস্থলে আমাকেও নিয়ে যাওয়ার ব্যবস্থা করেছিল। দেশের মাটিতেও একসাথে কাজ করেছি। তার কাছ থেকে সব কাজ শিখেছি আমি, সে আমার বন্ধু ও উস্তাদ ছিল। এমনভাবে হারাবো কখনো ভাবিনি।

নিহতের পারিবার জানা, গত ছয় মাস আগে নিহত রুবেল শ্রমিক ভিসায় ওমানের ইবরায় পাড়ি জমান। প্রতিদিনেই পরিবারের সাথে ফোনে কথা বলতেন। তার ছোট্ট শিশুর জন্য কথা বলতে বলতে কাঁদতেন। আজ সবাইকে ছেড়ে চলে গেছে সুখ-সাগরে ভাসিয়ে দিয়ে।

শোকে স্তব্ধ রুবেলের বাবা-মা সন্তানের লাশ দ্রুত দেশে পাঠানোর জন্য বাংলাদেশ সরকার ও ওমান বাংলাদেশ দূতাবাসের কাছে অনুরোধ জানিয়েছেন।

পূর্বকোণ/আরপি-জাহাঙ্গীর

The Post Viewed By: 274 People

সম্পর্কিত পোস্ট