চট্টগ্রাম রবিবার, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০

বোধন মানুষের বোধকে সমৃদ্ধ করে

৯ জানুয়ারি, ২০২০ | ৪:৪৮ পূর্বাহ্ণ

প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর ২য় দিনে বক্তারা

বোধন মানুষের বোধকে সমৃদ্ধ করে

‘আঁধার ভেঙ্গে আলোর বুনন’ স্লোগানে পথচলার ৩৩ বছর পূর্ণ করেছে বোধন আবৃত্তি পরিষদ চট্টগ্রাম। ১৯৮৭ সালের ৯ জানুয়ারি স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলন যখন তুঙ্গে তখন রাজপথে লড়াকু কয়েকজন আবৃত্তিকর্মীর উদ্যোগে জন্ম হয়েছিল বোধনের। আটাশ বছরের দীর্ঘ এই পথচলায় বোধন আবৃত্তি চর্চায় এনেছে বৈচিত্র্য, পরিবর্তন এনেছে আবৃত্তির গুণগত মানে এবং সাংগঠনিক চর্চায় যুক্ত করেছে নতুন নতুন মাত্রা। শুধু কর্মসূচির দিক থেকে নয় সদস্য সংখ্যার দিক থেকেও সংগঠনটির বিস্তার ঈর্ষণীয়।
আর বোধনের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষ্যে ‘তেত্রিশ বছর কাটলো’ শিরোনামে চট্টগ্রাম শিল্পকলা একাডেমিতে ৩ দিনের আয়োজনের বুধবার দ্বিতীয় দিন শুরু হয় বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা মাধ্যমে। শিল্পকলার প্রাঙ্গণ থেকে শোভাযাত্রা বের হয়ে নগরীর বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে। এসময় বোধনের সদস্যরা ঢোলের তালে নেচে গেয়ে মুখর করে তোলেন প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর পুরো আয়োজন।

এরপর শুরু হয় কথামালা পর্ব। এতে অংশ নেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি লায়ন্স গভর্নর কামরুন মালেক, আবৃত্তিশিল্পী হাসান আরিফ, দ্বীপ্তি রক্ষিত বনানী, কবি জিল্লুর রহমান ও আবৃত্তিশিল্পী রাশেদ হাসান। কথামালায় সভাপতিত্ব করেন সহ-সভাপতি সুবর্ণা চৌধুরী। সোহেল আনোয়ারের সঞ্চালনায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন এস এম আবদুল আজিজ।
প্রধান অতিথি বলেন, আমাদের সত্যিকারের মানুষ হতে আগে নিজের সমালোচনা করি, তারপর অন্যের সমালোচনা করতে হয়। আবৃত্তিশিল্পী হাসান আরিফ বলেন, গান কবিতায় ইতিহাস বলে দেয়। কথামালা সঞ্চালনায় ছিলেন বোধন আবৃত্তি পরিষদের সভাপতি সোহেল আনোয়ার।

এরপর কবিতা পাঠে অংশ নেন কবি এজাজ ইউসুফী, অভিক ওসমান, জিললুর রহমান, ফারহানা আনন্দময়ী, মনিরুল মনির, রুহ্ রুহেল। একক আবৃত্তিতে অংশ নেন সেলিম রেজা সাগর, তাসকিয়া নূর তানিয়া, এহতেশামুল হক, মাহবুবুর রহমান মাহফুজ, লুবাবা ফেরদৌসি সায়কা এবং বোধনের আবৃত্তিশিল্পী বুলবুল মুৎস্দ্দুী এবং আবদুল্লাহ আল মামুন।

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 104 People

সম্পর্কিত পোস্ট