চট্টগ্রাম শুক্রবার, ০৭ আগস্ট, ২০২০

সর্বশেষ:

মোছলেম বাবলু আজাদসহ আরও ৬ জন প্রার্থী

১৩ ডিসেম্বর, ২০১৯ | ৬:০০ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক হ

মোছলেম বাবলু আজাদসহ আরও ৬ জন প্রার্থী

মনোনয়নপত্র দাখিল চট্টগ্রাম-৮ আসনে উপ-নির্বাচন

চট্টগ্রাম-৮ (বোয়ালখালী, চান্দগাঁও, পাঁচলাইশ, বায়েজিদ আংশিক) সংসদীয় আসনের উপ-নির্বাচনে মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষদিনে ৬ সম্ভাব্য প্রার্থী মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। এ নিয়ে মোট ৮ জন মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। গতকাল (বৃহস্পতিবার) মনোনয়নপত্র জমা দেন দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোছলেম উদ্দিন আহমেদ, জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু, বাংলাদেশ ন্যাশনালিস্ট ফ্রন্ট (বিএনএফ) চেয়ারম্যান এস এম আবুল কালাম আজাদ, ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশের সৈয়দ মোহাম্মদ ফরিদ আহমদ, স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ এমদাদুল হক ও গণফ্রন্ট প্রার্থী উত্তম কুমার চৌধুরী। গত বুধবার জমা দেন বিএনপি মনোনীত প্রার্থী আবু সুফিয়ান ও ন্যাপের বাপন দাশগুপ্ত।
সকাল ১১টা ২০ মিনিটে দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি মোছলেম উদ্দিন আহমেদ দলীয় নেতাকর্মীদের নিয়ে মনোনয়নপত্র জমা দেন। বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী নিয়ে শোডাউন করে মনোনয়নপত্র জমা দেন তিনি। এসময় উপস্থিত ছিলেন নগর আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও

মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিন, উত্তর জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এম এ সালাম, দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান, চট্টগ্রাম উন্নয়ত কর্তৃপক্ষের (সিডিএ) চেয়ারম্যান আবদুচ ছালাম, নগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হাসান মাহমুদ হাসনী, নোমান আলম মাহমুদ প্রমুখ।
বিকেল ২টার পর মোছলেম উদ্দিন বোয়ালখালী উপজেলার গোমদ-ী পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ে কর্মী সমাবেশ করে শোডাউন করেছেন। পরে সহকারী রিটার্নিং কার্যালয়ে মনোনয়নপত্রের অনুলিপি জমা দেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন নগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দিন আহমদ, উপজেলা চেয়ারম্যান নুরুল আলমসহ জেলা ও উপজেলা আওয়ামী লীগ-সহযোগী সংগঠনের কয়েক শ নেতাকর্মী।
আওয়ামী লীগ প্রার্থী মোছলেম উদ্দিন আহমেদ বলেন, বিএনপি মনোনীত প্রার্থী বহিরাগত। বোয়ালখালী তথা এলাকার উন্নয়নে তার কোন আগ্রহ থাকবে না।
দুপুর দেড়টায় মনোনয়নপত্র দাখিল করেন বাংলাদেশ ন্যাশনালিস্ট পার্টির (বিএনএফ) সভাপতি আবুল কালাম আজাদ। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, দলের কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব শফিউল্লাহ চৌধুরী, চট্টগ্রাম জেলা বিএনএফ সভাপতি আবু মো. শামসুদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক লায়ন মৌলানা ইউসুফ, নগর সাধারণ সম্পাদক আতিউল্লাহ ওয়াসিম, বোয়ালখালী বিএনএফ সভাপতি মুক্তিযোদ্ধা আবু বক্কর ছিদ্দিকি, বিএনএফ ছাত্রফ্রন্ট সভাপতি সৈয়দ মাহবুব আজাদ।
বিএনএফ সভাপতি আবুল কালাম আজাদ বলেন, ‘এখনো মহাজোটের প্রার্থী হওয়া নিয়ে কোন সিদ্ধান্ত হয়নি। স্ব-স্ব দলের প্রার্থী হয়েই মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছি। এখনো জোটের প্রার্থিতা নির্ধারণ হয়নি। জোটের বৈঠকে জোটনেত্রী এই বিষয়ে সিদ্ধান্ত দেবেন’।
বিকাল ৩টার পরে মিছিল-শোডাউন করে মনোনয়নপত্র দাখিল করেন জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু। মিছিল-স্লোগানের কারণে নির্বাচন কার্যালয়ের প্রধান গেট বন্ধ করে দেয় পুলিশ।
জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবুল দুঃখ প্রকাশ করে বলেন, ‘নেতাকর্মীরা উৎসাহিত হয়ে স্লোগান দিয়েছে’। তিনি আরও বলেন, ‘জাতীয় পার্টির আমলে শাহ আমানত সেতু নির্মাণ করা হয়েছে। বর্তমান প্রধানমন্ত্রী চট্টগ্রামে অনেক বড় প্রকল্পের কাজ করছেন। আশা করছি, ‘বোয়ালখালীবাসীর প্রাণের দাবি কালুরঘাট সেতু নির্মাণের উদ্যোগ নিবেন প্রধানমন্ত্রী’।
ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশ মনোনীত প্রার্থী এসএম ফরিদ উদ্দিন, স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ এমদাদুল হক ও গণফ্রন্ট প্রার্থী উত্তম কুমার চৌধুরী মনোনয়নপত্র জমা দেন।
মনোনয়নপত্র জমাদানের শেষদিনে কয়েকজন প্রার্থী মিছিল, কর্মী সমাবেশ ও শোডাউন করে মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন। জাতীয় সংসদ নির্বাচন আচরণবিধির ৮ ধারার ‘খ’ উপ-ধারায় উল্লেখ রয়েছে ‘মনোনয়নপত্র দাখিলের সময় কোন প্রকার মিছিল কিংবা শোডাউন করতে পারবেন না।
রিটার্নিং কর্মকর্তা ও চট্টগ্রাম আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ হাসানুজ্জামান বলেন, ‘উৎসবমুখর পরিবেশে আট প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন’।
গত ৭ নভেম্বর সংসদ সদস্য মঈন উদ্দিন খান বাদলের মৃত্যুতে আসনটি শূন্য ঘোষণা করে ইসি। শূন্য আসনে উপ-নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন।
ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই ১৫ ডিসেম্বর, প্রার্থিতা প্রত্যাহার ২২ ডিসেম্বর। ভোটগ্রহণ ১৩ জানুয়ারি।

The Post Viewed By: 197 People

সম্পর্কিত পোস্ট