চট্টগ্রাম শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর, ২০২০

৮ মে, ২০১৯ | ২:৩৪ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব সংবাদদাতা , কক্সবাজার

বাস-বাইক সংঘর্ষে যুবক নিহত সড়ক অবরোধ অগ্নিসংযোগ

চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে ঈদগাঁও কলেজ গেট এলাকায় হানিফ পরিবহনের একটি বাস ও মোটর বাইকের সংঘর্ষের ঘটনায় আসিফ কামাল ইমরান নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন। নিহত ইমরান ঈদগাঁও কালির ছড়া এলাকার আবু তাহেরের ছেলে। তিনি ঈদগাঁও শাহ জব্বারিয়া দাখিল মাদ্রাসা থেকে সদ্য ঘোষিত দাখিল পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হয়েছেন। ঘটনায় মোটর সাইকেলের আরও দুই আরোহী গুরুতর আহত হয়েছেন। মুমূর্ষু অবস্থায় একজনকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও আরেক জনকে ডুলাহাজারা মেমোরিয়াল খ্রিস্টান হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১০ টার দিকে এই ঘটনা ঘটে। আহতরা হল. ঈদগাঁও কলির ছড়া এলাকার নুরুর ছেলে শামীম (১৮) ও শামশু আলমের ছেলে রাহুল (১৮)। ঘটনার খবরে পেয়ে বাসস্ট্যান্ডে সড়কে টায়ার জালিয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করে শিক্ষার্থীরা। ঈদগাঁও পুলিশের একদল ফোর্স ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। সরেজমিনে পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীদের সাথে কথা বলে জানা যায় , চট্টগ্রামমুখী হানিফ পরিবহনের একটি বাস (নম্বর চট্টমেট্রো-ব-১১-০২৪৩) ঘটনাস্থলে পৌঁছলে কালির ছড়ামুখী একটি পালসার কালো রং এর বাইক একইস্থানে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে হানিফ পরিবহনের সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এক পর্যায়ে বাইকটি বাসের নিচে চাপা পড়ে। স্থানীয়রা দ্রুত

এগিয়ে এসে আহতদের উদ্ধার করে পাশ্ববর্তী বাসস্ট্যান্ডস্থ একটি ক্লিনিকে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক ইমরানকে মৃত ঘোষণা করেন। অপর শামীম ও রাহুলকে অন্যত্র প্রেরণ করা হয়। এই ঘটনায় শিক্ষার্থীরা সড়কে টায়ার জালিয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করে এবং কলেজ গেট এলাকায় গিয়ে হানিফ পরিবহনের বাসে আগুন লাগিয়ে দেয়। এতে সড়কে দীর্ঘ যানজট সৃষ্টি হলে উভয় পাশ থেকে আসা যানবাহন আটকা পড়ে।
ঈদগাঁও তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ মো. আসাদুজ্জামানের নির্দেশে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। পরে রামু তুলা বাগান হাইওয়ে পুলিশের একটি দলও ঘটনাস্থলে আসে। বাসটি তাদের হেফাজতে নিয়ে যায় বলে জানান হাইওয়ে পুলিশের এসআই জামাল।
অন্যদিকে মর্মান্তিক দুর্ঘটনায় বাসে আগুন দিয়ে জ্বালিয়ে দেয়ার ঘটনায় ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠেছে স্থানীয় পরিবহন সংগঠনের নেতারা।
ঈদগাঁও পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ মো. আসাদুজ্জামান বলেন, খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে।

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 305 People

সম্পর্কিত পোস্ট