চট্টগ্রাম বুধবার, ২৭ জানুয়ারি, ২০২১

২৫ নভেম্বর, ২০২০ | ১:১১ অপরাহ্ণ

এনায়েত হোসেন মিঠু, মিরসরাই

বারইয়ারহাট পৌরসভা: সিদ্ধান্তহীনতায় বিএনপি, প্রার্থী চাপে আ. লীগ

দুয়ারে কড়া নাড়ছে পৌর নির্বাচন। এ নিয়ে সম্ভাব্য প্রার্থীরা দলীয় মনোনয়ন পেতে চেষ্টা-তদবির চালিয়ে আসছেন। এ দৌড়ে এগিয়ে রয়েছে আওয়ামী লীগ। সরকারি দলে এখন প্রার্থীর ছড়াছড়ি। তবে সিদ্ধান্তহীনতায় রয়েছে বিএনপি।

বারইয়াহাট পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়নপ্রত্যাশীরা হলেন, বর্তমান মেয়র উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি মো. নিজাম উদ্দিন প্রকাশ ভিপি নিজাম। পৌরসভা আওয়ামী লীগের সভাপতি মীর আলম মাসুক, সাধারণ সম্পাদক রেজাউল করিম খোকন ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আলী আহছান। মনোনয়নপ্রত্যাশীরা মিরসরাই আসনের সংসদ সদস্য দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেনের সিদ্ধান্তের দিকে তাকিয়ে আছেন। বিভিন্ন সংস্থা ও প্রার্থীদের রাজনৈতিক কর্মকা- বিবেচনা করে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত দিবে হাইকমান্ড। প্রার্থী চূড়ান্ত করার ক্ষেত্রে দলীয় কাউন্সিলেরর আয়োজন করা হবে।  মনোনয়নপ্রত্যাশী বর্তমান মেয়র ভিপি নিজাম পূর্বকোণকে বলেন, ‘বিগত ৫ বছর মেয়র হিসেবে দায়িত্ব পালনকালে পৌরসভার অনেক উন্নয়ন কাজ করেছি। আমার নেতা ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন আমার কাজে খুশি। আমি এবারও দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার আশাবাদী।’ 

আওয়ামী লীগ থেকে রেজাউল করিম খোকন বর্তমান মেয়র নিজাম উদ্দিনের কাজের সমালোচনা করে বলেন, ‘তিনি (নিজাম উদ্দিন) ৫ বছর দায়িত্বে থেকে দল এবং জনগণের প্রত্যাশা পূরণ করতে ব্যর্থ হয়েছেন। সরকারের রুটিনমাফিক উন্নয়ন কাজ ছাড়া আর কিছু করতে পারেন নি।’ দলীয় মনোনয়ন প্রাপ্তির বিষয়ে তিনি বলেন, ‘আমি রাজনীতি করি সাধারণ মানুষের জন্য। আমার নেতা ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেনের দিক নির্দেশনা অনুযায়ী দলের জন্য কাজ করেছি। মনোনয়ন পাওয়ার ব্যাপারে আমি শতভাগ আশাবাদী।

আওয়ামী লীগের সভাপতি মীর আলম মাসুক বলেন, ‘আমি দলের দুর্দিনে দলের পাশে ছিলাম। আমার বিশ্বাস, আমি এবার দলের মনোনয়ন পাবো।’ উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আলী আহছানও দলীয় মনোনয়ন পাওয়ার বিষয়ে আশাবাদী।

অনেকটা নীরব থাকলেও বিএনপির একাধিক প্রার্থী নিজেদের প্রার্থিতার ঘোষণার দিচ্ছেন। প্রার্থী হিসেবে মাঠে থাকার বিষয়ে জানিয়েছেন পৌরসভা বিএনপির আহ্বায়ক দিদারুল আলম মিয়াজী। পৌর বিএনপির সাবেক সভাপতি মাঈন উদ্দিন লিটনও দল থেকে মনোনয়ন চাইবেন।

বিএনপির মনোনয়নপ্রত্যাশী পৌর বিএনপির আহ্বায়ক দিদারুল আলম মিয়াজি পূর্বকোণকে বলেন, ‘দলের দুর্দিনে আমি বিএনপির রাজনীতিকে বারইয়াহাট পৌরসভায় টিকিয়ে রেখেছি। আশা করছি, দল আমাকেই মনোনয়ন দিবে।’

২০০০ সালের ২৭ এপ্রিল পৌরসভাটির যাত্রা শুরু হয়। ২.১২ কিলোমিটার আয়তনে অবস্থিত পৌরসভাটি ৯টি ওয়ার্ড নিয়ে গঠিত। ২০১১ সালের আদমশুমারি অনুযায়ী মোট জনসংখ্যা ১১ হাজার ৬০২ জন। ভোটার সংখ্যা ৮ হাজার ৭১০ জন।

পূর্বকোণ/এএ

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 95 People

সম্পর্কিত পোস্ট