চট্টগ্রাম শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর, ২০২০

১৯ অক্টোবর, ২০২০ | ৮:৫৭ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

রেলের জায়গায় দু’শতাধিক ভাড়ার ঘর!

রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের বিদ্যুৎ বিভাগের কর্মচারী শেখ নাসির উদ্দিন আহমেদ মিন্টু। বিদ্যুৎ বিভাগে ইলেকট্রিক মিস্ত্রি হিসেবে তার কাজ ছিল রেলওয়ের জায়গায় অবৈধ বিদ্যুৎ সংযোগের লাইন কেটে দেয়া। অথচ মিন্টু নিজেই নগরীর আমবাগান এলাকায় রেলের জায়গা দখল করে গড়ে তুলেছেন দুই শতাধিক ভাড়া ঘর। মিন্টু কলোনি নামে পরিচিত এসব ঘরে নিজেই নিয়েছেন অবৈধ বিদ্যুৎ ও গ্যাস সংযোগ। যার সাথে জড়িত রয়েছে পিডিবি ও কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিশন কোম্পানির কতিপয় অসাধু কর্মচারী যারা মাস শেষে এসব অবৈধ লাইনের বিপরীতে মিন্টুর কাছ থেকে  গ্রহণ করত মোট অংকের টাকা। সেইসাথে  ১৪ বছর ধরে রেলওয়ের কয়েকজন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাকে ম্যানেজ করে এসব বসতি থেকে লাখ লাখ টাকা আয় করতেন মিন্টু। আজ সোমবার (১৯ অক্টোবর) অবশেষে সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত মিন্টু কলোনিতে অভিযান চালায় ভূ-সম্পত্তি বিভাগ। গুড়িয়ে দেয়া হয় এসব অবৈধ স্থাপনা। অভিযানে এ সময় সেমিপাকা, আধা সেমিপাকা, টিনশেড ও ঝুপড়ি মিলিয়ে ২৩১টি অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করে শূন্য দশমিক ৭৯ একর জমি উদ্ধার করা হয়।

রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের বিভাগীয় ভূ-সম্পত্তি কর্মকর্তা মাহবুবউল করিম পূর্বকোণকে বলেন, মিন্টু কলোনিতে আজ সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত একটানা অভিযান চালিয়ে ৪০৯ জন দখলদারকে উচ্ছেদ করা হয়েছে । গুড়িয়ে দেয়া হয়েছে ২৩২টি অবৈধ স্থাপনা । স্কেভেটর দিয়ে গুঁড়িয়ে দেয়া হয় আধা-পাকা ও টিন শেড ঘর।

তিনি বলেন, এসব অবৈধ ঘরে বিদ্যুৎ ও গ্যাস সংযোগ এল কিভাবে তার একটা তদন্ত করে দেখতে পারে সংলিষ্ট প্রতিষ্ঠান গুলো। যদি অবৈধ বা সরকারি জায়গা দখল করে তাতে বিদ্যুৎ ও গ্যাস সংযোগ না পায়  তাহলে রেলের জায়গা দখল করে ঘর নির্মাণে প্রবণতা কমে আসবে।

পূর্বকোণ / আরআর

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 135 People

সম্পর্কিত পোস্ট