চট্টগ্রাম মঙ্গলবার, ২৭ অক্টোবর, ২০২০

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০২০ | ৭:০৪ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

বদর পুকুর সংস্কার কাজ দ্রুত শেষ করার তাগিদ দিলেন চসিক প্রশাসক

মহান অলীদের স্মৃতিধন্য বদর পুকুর। এটি একটি প্রত্নতাত্ত্বিক ঐতিহাসিক স্থান। এটিকে রক্ষা করা সকলেরই দায়িত্ব। চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের আন্তরিক প্রচেষ্টায় এ প্রকল্পের কাজ এখন শেষ পর্যায়ে। অবশিষ্ট কাজ সম্পন্ন হলে ‘বদর পুকুর’ শুধু দেশে নয়, দেশের বাইরেও একটি আধ্যাত্মিক পর্যটন স্থান  হিসেবে সার্বজনীনতা পাবে। মঙ্গলবার (২২ সেপ্টেম্বর ) বিকেল ৩টায় আন্দরকিল্লাস্থ পুরাতন নগর ভবনের আবদুস সাত্তার মিলনায়তনে এক সভায় চসিক প্রশাসক খোরশেদ আলম সুজন এসব কথা বলেন। এসময় পুকুরের একাংশে ভূমি নিয়ে রিরোধ মিটিয়ে শেষ করার বিষয়ে একাত্মতা প্রকাশ করেন সবাই।

এসময় তিনি এলাকাবাসীকে ঐক্যবদ্ধ থেকে বাকী কাজটুকু শেষ করার তাগিদ দেন। সভায় সিটি কর্পোরেশনের পক্ষে উপস্থিত ছিলেন প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা মফিদুল ইসলাম, ইঞ্জিনিয়ার ফরহাদুল আলম, ভূমি কর্মকর্তা কামরুল ইসলাম, প্রশাসক মহোদয়ের একান্ত সচিব আবুল হাশেম। বদরপাতি এলাকাবাসীর পক্ষে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম নগর বিএনপির সহ সভাপতি হারুন জামান, ৩২নং আন্দরকিল্লা ওয়ার্ডের কাউন্সিলর পদপ্রার্থী ও চট্টগ্রাম সিটি বিশ্ববিদ্যালয় কলেজ ছাত্র সংসদের সাবেক জিএস সাবেক ছাত্রনেতা মুহাম্মদ নোমান লিটন, আন্দরকিল্লা ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাবেক কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগনেতা মহিউদ্দিন শাহ্, বদর পুকুর পাড়স্থ ‘যুবকণ্ঠে’র সভাপতি নুরুল হুদা, বদর আউলিয়া মাজার শরীফের মোতোয়ালি সৈয়দ আবুল হাশেম, আখতার আজিম খান, দিদার আজিম খান, মাহমুদ উল্যাহ্, হাবিব উল্যাহ্, জসিমউদ্দিন, মোহাম্মদ ইব্রাহিম, আন্দরকিল্লা ওয়ার্ড বিএনপির সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আবুল বশর, নগর স্বেচ্ছাসেবকলীগনেতা জানে আলম, যুবকণ্ঠে’র সাধারণ সম্পাদক ফেরদৌস জ্যাকী, সুমন, মোরশেদ প্রমুখ।

সভায় উপস্থিত এলাকাবাসী বদর পুকুর সংস্কার প্রকল্পের অবশিষ্ট কাজ দ্রুত শেষ করার বিষয়ে একাত্মতা প্রকাশ করে সিটি কর্পোরেশনকে সার্বিক সহযোগিতা প্রদানের প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। এসময় বক্তারা চলমান প্রকল্পে ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ তুলে ক্ষোভ প্রকাশ করেন। প্রশাসক খোরশেদ আলম সুজন সিটি কর্পোরেশনের পক্ষ থেকে এজন্য ক্ষমাপ্রার্থনা করেন এবং প্রকল্পের কাজে অনিয়মের ব্যাপারে তদন্তের আশ্বাস দেন। তিনি এসময় আবারো প্রকল্পের অসমাপ্ত কাজ সকলের সহযোগিতা নিয়ে দ্রুত শেষ করার ব্যাপারে দৃঢ সংকল্প ব্যক্ত করেন।

উল্লেখ্য,২০১৮ সালে বদর শাহ পুকুর সংস্কার ও আধুনিকায়নের উদ্যোগ নিয়েছিলেন তৎকালীন সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন। ২ কোটি ৬৪ লাখ টাকা ব্যয়ে একটি প্রকল্প গ্রহণ করা হয়। যা ২০১৮ সালের ১৫ জুলাই থেকে এ পুকুরের সংস্কার ও আধুনিকায়নের কাজ শুরু হয় ।

পূর্বকোণ / আরআর

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 118 People

সম্পর্কিত পোস্ট