চট্টগ্রাম শনিবার, ২৮ নভেম্বর, ২০২০

সর্বশেষ:

কারাগারে আইনজীবী-স্বজনদের দেখা পাবেন না ওসি প্রদীপ, মোবাইলও নিষিদ্ধ

৩১ আগস্ট, ২০২০ | ৮:২৬ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

৫০ লাখ টাকা না পেয়ে দুই ভাই-ভাগ্নেকে ক্রসফায়ার দেন প্রদীপ!

আবারও ক্রসফায়ারের নামে একই পরিবারের তিনজনকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে কক্সবাজারের টেকনাফ থানার সাবেক ওসি প্রদীপ কুমার দাশের বিরুদ্ধে। সেখানে টেকনাফ থানার বরখাস্ত ওসি প্রদীপ কুমার দাশসহ ৪১ জনের বিরুদ্ধে নালিশি দরখাস্ত করা হয়েছে। দরখাস্তে অভিযোগ হিসেবে উল্লেখ করা হয়, ৫০ লাখ টাকা না দেয়ায় দুই ভাইসহ এক ভাগ্নেকে ক্রসফায়ারের নামে হত্যা করা হয়। বাদিপক্ষের আইনজীবী কাশেম আলী সাংবাদিকদের এই তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

রাজিয়া মুন্নি নামে এক গৃহবধূ আজ সোমবার (৩১ আগস্ট) কক্সবাজার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আমলী আদালত নং-৩ এ নালিশি দরখাস্তটি দায়ের করেন। এতে আসামি হিসেবে পুলিশের ৩৫ সদস্য ও মাদক ব্যবসায়ী, সন্ত্রাসী ও পুলিশের দালালসহ ৬ জনের নাম রয়েছে। বাদি সুলতানা রাজিয়া মুন্নি টেকনাফ উপজেলা রঙ্গীখালী গাজী পাড়ার মরহুম ছৈয়দ আলমের স্ত্রী। আগামী ১৫ সেপ্টেম্বরের মধ্যে এ সংক্রান্ত আর কোনো মামলা আছে কিনা তদন্ত করে প্রতিবেদন দিতে বিচারক মোহাম্মদ হেলাল উদ্দীন টেকনাফ থানাকে নির্দেশ দিয়েছেন।

এজাহারে উল্লেখ করা হয়, উপজেলার রঙ্গীখালী গাজী পাড়ার সৈয়দ আলম ও তার ভাই নূরুল আলমসহ তাদের ভাগ্নে আনসার সদস্য সৈয়দ হোসেন ওরফে আবদুল মোনাফকে গত ৬ মে দিবাগত রাত ২টার দিকে ওসি প্রদীপ কুমার দাশের নেতৃত্বে একদল পুলিশ তুলে নিয়ে যায়। পরে ওসি প্রদীপ পরিবারের কাছ থেকে ৫০ লাখ টাকা দাবি করেন। পরিবার টাকা দিতে অস্বীকৃতি জানালে ওই দিন ভোরে বন্দুকযুদ্ধের নামে একসঙ্গে তিনজনকেই ধানক্ষেতে ক্রসফায়ারের নামে হত্যা করা হয়।

 

 

 

 

পূর্বকোণ/আরপি

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 130 People

সম্পর্কিত পোস্ট