চট্টগ্রাম শনিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর, ২০২০

সর্বশেষ:

বায়তুশ শরফের পীর আব্দুল জব্বারের পাশেই শায়িত হলেন মাওলানা কুতুব উদ্দিন
বায়তুশ শরফের পীর আব্দুল জব্বারের পাশেই শায়িত হলেন মাওলানা কুতুব উদ্দিন

২০ মে, ২০২০ | ৫:৩৭ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

বায়তুশ শরফের পীর মাওলানা কুতুব উদ্দিনের ইন্তেকাল

চট্টগ্রাম বায়তুশ শরফ দরবার শরীফের পীর মাওলানা কুতুব উদ্দিন ইন্তেকাল করেছেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহে ওয়া রাজিউন)।  আজ বুধবার (২০ মে) বিকেল ৫টায় ঢাকার আনোয়ার খান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৮৩ বছর। তিনি স্ত্রী, ৬ মেয়ে ও ১ ছেলেসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন। তাঁর মরদেহ দাফনের উদ্দেশ্যে চট্টগ্রাম নিয়ে আসা হচ্ছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে তাঁর নিকট আত্মীয় প্রকৌশলী মো. নাছির উদ্দিন বলেন, চিকিৎসকরা বুধবার বিকেল ৪টার পর থেকে হুজুরের হার্টবিট পাচ্ছিলেন না। বিকেল সাড়ে ৫টায় আমরা হুজুরের মৃত্যুর বিষয়টি সর্ম্পকে নিশ্চিত হই।’

মাওলানা কুতুব উদ্দীন দীর্ঘদিন ডায়াবেটিস ও উচ্চ রক্তচাপে ভুগছিলেন। গত সোমবার (১৮ মে) তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটলে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি করানো হয়। পরদিন মঙ্গলবার রাতে তাঁকে ঢাকায় নিয়ে যাওয়া হয়।

চট্টগ্রামের লোহাগাড়ার আধুনগর ইউনিয়নের সূফী মিয়াজী পাড়া গ্রামের সন্তান মাওলানা কুতুব উদ্দীন। লেখাপড়া করেছেন চুনতী হাকিমিয়া আলিয়া মাদ্রাসা ও চট্টগ্রাম শহরের দারুল উলুম আলিয়া মাদ্রাসায়। তিনি ১৯৫৯ সালে স্বর্ণপদকসহ প্রথম বিভাগে প্রথম স্থান অর্জন করে কামিল পাস করেন। বহুমাত্রিক প্রতিভার অধিকারী হওয়ার কারণে তিনি ধর্মীয় মহলে বাহরুল উলুম (জ্ঞানের সাগর) নামেও পরিচিত।

তিনি চট্টগ্রাম নগরীর ডবলমুরিং থানা এলাকার ধনিয়ালা পাড়ায় অবস্থিত বায়তুশ শরফের প্রতিষ্ঠাতা প্রখ্যাত সূফীসাধক মাওলানা মীর মুহাম্মদ আখতার (রহ.) এবং বায়তুশ শরফের প্রধান রূপকার শাহ সূফী মাওলানা মুহাম্মদ আবদুল জব্বার (রহ.) এর সান্নিধ্যে অবস্থান করে আধ্যাত্মিক সাধনায় নিমগ্ন হন। ১৯৯৮ সাল থেকে আমৃত্যু তিনি বায়তুশ শরফের পীর হিসেবে দায়িত্ব পালন করেছেন। তাঁর লিখা একাধিক বিখ্যাত ধর্মীয় গ্রন্থও রয়েছে।

হাদিস বিশারদ ও কুরআনের তাফসিরকারক মাওলানা কুতুব উদ্দীন আরবি, ফার্সি ও উর্দু ভাষাবিদ হিসেবে আন্তর্জাতিকভাবে খ্যাতিমান। কর্মজীবনে তিনি বায়তুশ শরফ আদর্শ কামিল মাদরাসার অধ্যক্ষ হিসেবে দায়িত্ব পালনকালে দেশের সেরা অধ্যক্ষের পুরস্কারও অর্জন করেন।

মৃত্যুর আগ পযন্ত মাওলানা কুতুব উদ্দীন ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশ লিমিটেড ও ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংকের শরিয়াহ সুপারভাইজারি কাউন্সিলের চেয়ারম্যান, জাতীয় পর্যায়ে শ্রেষ্ঠ অধ্যক্ষ হিসেবে পুরস্কারপ্রাপ্ত, শায়খুল হাদীস এবং আরবী সাহিত্যের খ্যাতিমান পণ্ডিত ছিলেন। ৯মার্চ ১৯৩৯ সালে তিনি চট্টগ্রামের লোহাগাড়া উপজেলায় জন্মগ্রহণ করেন।

হযরত মাওলানা মুহাম্মদ কুতুব উদ্দিনের মৃত্যুর খবরে তাঁর অগণিত ভক্তের মাঝে গভীর শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

পূর্বকোণ/আরপি

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
The Post Viewed By: 464 People

সম্পর্কিত পোস্ট