চট্টগ্রাম শুক্রবার, ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২০

রেলের চৌকিদারের কাছে অসহায় শীর্ষ কর্মকর্তারা

৬ মে, ২০২০ | ৯:৫৫ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

রেলের চৌকিদারের কাছে অসহায় শীর্ষ কর্মকর্তারা

রেলওয়ে পূর্বাঞ্চলের সংকেত বিভাগের অফিসের চৌকিদার মিজানুর রহমান। পদবী ছোট হলেও রেলের বড় বড় কর্মকর্তার ঘুম কেড়ে নিচ্ছেন তিনি। শুধু কি তাই, কর্মকর্তার কার্যক্রমে সন্তুষ্ট না হলে তাদের সাথে খারাপ ব্যবহার করার পাশাপাশি দুনিয়া থেকে বিদায় দেওয়ার হুমকিও দেন তিনি। জনশ্রুতি রয়েছে কর্মস্থলে তার পরিচিতি ‘ডন’ হিসেবে।

এবারও রেলের এক কর্মকর্তার কাজে নাখোশ হয়ে দিয়ে বসেছেন হত্যার হুমকি। প্রাণ ভয়ে জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে রেলওয়ে থানায় সাধারণ ডায়েরী (জিডি) করেছে ওই কর্মকর্তা। এর আগেও ২০১৬ সালে লাকসামে দায়িত্ব থাকা অবস্থায় সিগন্যাল বিভাগের কর্মকর্তা মহসিন মল্লিককেও মারার হুমকি দিয়েছিলেন চৌকিদার মিজান।

সূত্র জানায়, করোনাভাইরাসের মধ্যেও মাঠ পর্যায়ে যেসব কর্মকর্তা-কর্মচারী কাজ করছেন অর্থাৎ বিশেষ করে ট্রেন পরিচালনায় জড়িতদের তালিকা পাঠাতে বলে রেলপথ মন্ত্রণালয়। চৌকিদার মিজানুর রহমান মাঠ পর্যায়ে কর্মচারী না হওয়ায় তার নাম বাদ দেয়া হয়। বিষয়টি জানার পর মিজানুর রহমান তার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা বিভাগীয় সংকেত ও টেলিযোগাযোগ প্রকৌশলী (ডিএসটিআই) জাহেদ আরেফিন পাটোয়ারী তন্ময়ের সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করেন। পরে আরেক ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা উপ-সহকারী প্রকৌশলী (সংকেত) নুরুল ইসলামের সঙ্গেও খারাপ ব্যবহার করেন। এখানেই থেমে নেই মিজানুর রহমান। কয়েকদিন পর নুরুল ইসলামের মুঠোফোনে কল করে তাকে মেরে ফেলার হুমকিও দেন সংকেত বিভাগের এ কর্মচারী। তার এমন আচরণে অতিষ্ঠ পুরো সংকেত বিভাগ।

মুঠোফোনে হুমকি পাওয়ার পর সংকেত বিভাগের কর্মকর্তা নুরুল ইসলাম আজ বুধবার (৬ মে) চট্টগ্রাম রেলওয়ের থানায় জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন।

নুরুল ইসলাম পূর্বকোণকে বলেন, রেলপথ মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে মাঠ পর্যায়ে কর্মকর্তা-কর্মচারীদের তালিকা পাঠানো হয়। চৌকিদার মিজানুর রহমান মাঠ পর্যায়ের কর্মচারী নন। তাই ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের নির্দেশে তার নাম বাদ দেয়া হয়। তালিকায় তার নাম দিলে এরকম আরও কয়েকশ কর্মচারীর নাম দিতে হতো। তার নাম কেনো বাদ দিয়েছি, সেজন্য কখনও সরাসরি আবার কখনও মুঠোফোনে মেরে ফেলার হুমকি দিচ্ছে। তাই নিজের নিরাপত্তা চেয়ে রেলওয়ের থানায় জিডি করেছি।

বিভাগীয় সংকেত ও টেলিযোগাযোগ প্রকৌশলী (ডিএসটিআই) জাহেদ আরেফিন পাটোয়ারী তন্ময় বলেন, মিজানুর রহমান আমার সঙ্গেও খারাপ ব্যবহার করেছে। এরপরও আমরা চেয়েছি অফিসিয়ালি সমাধান করতে। কিন্তু সে আমাদের আরেক কর্মকর্তা নুরুল ইসলামের সঙ্গেও খারাপ ব্যবহার ও হুমকি দিচ্ছে।

চট্টগ্রাম রেলওয়ের থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোস্তাফিজ ভূঁইয়া পূর্বকোণকে বলেন, মিজানুর রহমান নামে এক চৌকিদার তার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা নুরুল ইসলামকে হুমকি দেওয়ার বিষয়ে একটি জিডি পেয়েছি। আমরা বিষয়টি তদন্ত করে ব্যবস্থা নেবো।

এ বিষয়ে অভিযুক্ত চৌকিদার মিজানুর রহমান পূর্বকোণকে বলেন, ‘সংকেত বিভাগের ওই কর্মকর্তার বেশ কিছু অনৈতিক কাজে বাঁধা প্রদান করায় তার সাথে আমার বিরোধের সৃষ্টি হয়। সর্বশেষ মন্ত্রণালয়ে মাঠ পর্যায়ের কর্মীদের নাম পাঠানোর নির্দেশনা আসলেও সেখান থেকে আমার নাম বাদ দেয়া হয়। যা নিয়ে ওই কর্মকর্তার সাথে কথা কাটাকাটি হয়৷ তবে তাকে কোন হত্যার হুমকি দেইনি।

 

 

 

 

পূর্বকোণ/আরপি

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
The Post Viewed By: 664 People

সম্পর্কিত পোস্ট