চট্টগ্রাম রবিবার, ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২০

সর্বশেষ:

করোনার বিস্তার ঠেকানোই লক্ষ্য

৩০ মার্চ, ২০২০ | ৩:১০ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

চট্টগ্রামে প্রশাসনের ব্যাপক প্রস্তুতি

করোনার বিস্তার ঠেকানোই লক্ষ্য

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ও বিস্তার মোকাবেলায় এবং আক্রান্তদের ব্যবস্থাপনায় ব্যাপক প্রস্তুতি গ্রহণ করেছে চট্টগ্রামের প্রশাসন। সন্দেহজনক রোগীকে করোনা পরীক্ষা, করোনা আক্রান্ত হলে রোগীদের আইসোলেশনে রেখে চিকিৎসা নিশ্চিত, করোনা মোকাবেলায় সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা, সার্বক্ষণিক আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর তদারকি, কেউ করোনা আক্রান্ত হলে সেই রোগীকে এম্বুলেন্সে করে হাসপাতালে নেওয়াসহ করোনা ব্যবস্থাপনায় শতভাগ প্রস্তুতি রয়েছে বলে জানিয়েছে প্রশাসন। গতকাল রবিবার চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) দামপাড়া পুলিশ লাইন্সের কনফারেন্স হলে করোনাভাইরাস সংক্রমণ ও বিস্তার প্রতিরোধ এবং আক্রান্ত ব্যক্তিদের ব্যবস্থাপনার বিষয়ে অনুষ্ঠিত সমন্বয় সভায় এ প্রস্তুতির কথা জানায় সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের প্রতিনিধিরা। সভায় করোনা মোকাবেলায় স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলরসহ জনপ্রতিনিধিদের সম্পৃক্ত করার প্রস্তাব দেওয়া হয় পুলিশের পক্ষ থেকে। সিএমপি কমিশনার মো. মাহাবুবর রহমানের সভাপতিত্বে সমন্বয় সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন। আলোচনায় অংশ নেন বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক ডা. হাসান শাহরিয়ার কবির, সিভিল সার্জন সেখ ফজলে রাব্বী, সিএমপি’র অতিরিক্ত কমিশনার (প্রশাসন ও অর্থ) আমেনা বেগম, অতিরিক্ত কমিশনার (ট্রাফিক) এসএম মোস্তাক আহমেদ খান, অতিরিক্ত কমিশনার (অপরাধ ও অভিযান) শ্যামল কুমার নাথ। এছাড়া চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক, জেলা প্রশাসনের প্রতিনিধিসহ সরকারি বিভিন্ন দপ্তরের প্রতিনিধিরা সভায় উপস্থিত ছিলেন।
সিএমপি কমিশনার মো. মাহাবুবর রহমান বলেন, করোনাভাইরাস সংক্রমণ ও বিস্তার প্রতিরোধ এবং আক্রান্ত ব্যক্তিদের ব্যবস্থাপনার বিষয়ে শতভাগ প্রস্তুতি রয়েছে পুলিশসহ সংশ্লিষ্টদের। আমরা সমন্বয় সভা করেছি। সভায় বেশ কিছু সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। করোনা আক্রান্ত হলে আমাদের করণীয় কী তা নিয়েও আলোচনা হয়েছে। এসব সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন করা গেলে আশা করছি করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে আমরা শতভাগ সক্ষম হবো।
তিনি বলেন, আমরা চেষ্টা করছি সাধারণ মানুষ যাতে সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখেন। বিদেশ ফেরতদের হোম কোয়ারেন্টিন নিশ্চিত করতে আমরা তাদের বাসায় ওষুধসহ নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্য পর্যন্ত পৌঁছে দিচ্ছি। এছাড়া পুলিশের পক্ষ থেকে অসহায় মানুষকে খাবার সামগ্রী দিয়ে সহায়তা করা হচ্ছে।

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
The Post Viewed By: 71 People

সম্পর্কিত পোস্ট