চট্টগ্রাম বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২০

চট্টগ্রাম ক্লাবে ভিভালদী ক্লাসিক্যাল ভায়োলিন ও কয়্যার সঙ্গীতের আসর

১৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ | ৩:৩০ পূর্বাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিবেদক

চট্টগ্রাম ক্লাবে ভিভালদী ক্লাসিক্যাল ভায়োলিন ও কয়্যার সঙ্গীতের আসর

সঙ্গীত জীবনের একটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ। যেকোনো সঙ্গীত মনের প্রশান্তির জন্ম দেয়। শুদ্ধতা ও শুভ্রতা সৃষ্টি করে। তেমনি ভায়োলিনের সুরে আছে এক অসাধারণ মুগ্ধতা। এ সংগীতচর্চা মানুষের চিত্ত প্রসারিত করে। আবার যেকোনো মানুষকে নির্ভয়ে লড়াই করতে সাহস যোগায়। ভিভালদী ক্লাসিক্যাল ভায়োলিন ও কয়্যার সঙ্গীতানুষ্ঠানে অতিথিরা এ কথা বলেন।

গতকাল সন্ধ্যা সাতটায় চট্টগ্রাম ক্লাবের ব্যাংকুয়েট হলে আলিয়ঁস ফ্রঁসেজ ও ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংকের যৌথ উদ্যোগে ‘ভিভালদী’ শিরোনামে এক ক্লাসিক্যাল ভায়োলিন ও কয়্যার সঙ্গীতানুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। আলিয়ঁস ফ্রঁসেজের পরিচালক ড. সেলভাম থোরেজের সভাপতিত্বে অনষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংকের পরিচালক ও চেয়ারম্যান এবং

আলিয়ঁস ফ্রঁসেজের এক্সিকিউটিভ কমিটির সদস্য আনিসুজ্জামান চৌধুরী রনি। বিশেষ অতিথি ছিলেন দৈনিক পূর্বকোণের পরিচালনা সম্পাদক, চট্টগ্রাম ক্লাবের চেয়ারম্যান ও আলিয়ঁস ফ্রঁসেজের এক্সিকিউটিভ কমিটির সদস্য জসিম উদ্দিন চৌধুরী ও এশিয়ান ইউনিভার্সিটি ফর উইমেন এর উপাচার্য অধ্যাপক নির্মলা রাও।

বক্তব্য পর্বশেষে অনুষ্ঠানে সঙ্গীত পরিচালনার দায়িত্বে ছিলেন ড. সেলভাম থোরেজ। যৌথ ভায়োলিন পরিবেশনের মাধ্যমেই অনুষ্ঠানের শুরু হয়। কামি অব্রে ও কামি রঁসিয়ের যৌথ পরিবেশনায় দলীয় ভায়োলিন পরিবেশন করেন আরো একঝাঁক শিক্ষার্থী। যৌথ পরিবেশনের পর পরই ভায়োলিনের তারে সুর তুলেন ইলেনা আন্দেয়েব। ইলেনা আন্দেয়েব এর সঙ্গে একে একে দলীয় ভায়োলোঁচেলো পরিবেশন করেন এশিয়ান ইউনিভার্সিটির শিক্ষার্থীরা। বাসুনে সুর তুলেন ইমানুয়েল উতু, গিটারে ছিলেন ফ্লোরোঁ মারি ও ওবো’তে ছিলেন জোহান ম্যাতর।
অনুষ্ঠানের সহযোগিতায় ছিলেন ঢাকা ফরাসী দূতাবাস ও ইউনাইটেড কমার্শিয়াল ব্যাংক।

শেয়ার করুন
The Post Viewed By: 77 People

সম্পর্কিত পোস্ট