চট্টগ্রাম রবিবার, ২০ সেপ্টেম্বর, ২০২০

সর্বশেষ:

অ-উপজাতি স্থায়ী সনদ জালিয়াতি, বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রসহ আটক ২

১২ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ | ১:০৬ অপরাহ্ণ

মানিকছড়ি সংবাদদাতা

অ-উপজাতি স্থায়ী সনদ জালিয়াতি, বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রসহ আটক ২

খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা প্রশাসক প্রদত্ত অ-উপজাতি স্থায়ীবাসিন্দা সনদ জালিয়াতি করার অপরাধে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রসহ দুইজনকে আটক করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (১১ ফেব্রুয়ারি) সকালে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হওয়া শিক্ষার্থী মো. আবুবকর সিদ্দিক ও সনদ জালিয়াতিতে সহযোগিতার অপরাধে মো. ফারুক হোসেনকে (৪০) আটক করে পুলিশ।

মানিকছড়ি থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আমির হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষায় মেধা তালিকায় উত্তীর্ণ হয় মানিকছড়ি উপজেলার ২১১ নং ডাইনছড়ি মৌজার মো. রফিকুল ইসলাম ও ছকিনা বেগমের পুত্র মো. আবুবকর সিদ্দিক।

পরে সে অ-উপজাতি কোটায় মাইগ্রেশন হয়ে অন্য বিভাগে (ফরেস্টি) ভর্তি হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তির সময়ে অ-উপজাতি স্থায়ী বাসিন্দা সনদ পত্র দিলে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ ওই শিক্ষার্থীর সকল কাগজপত্র যাছাই-বাছাইয়ের জন্য অ-উপজাতি স্থায়ী সনদটি খাগড়াছড়ি  জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে প্রেরণ করে। সেটি যাছাইকালে দেখা যায় যে, বিশ্ববিদ্যালয়ে জমাকৃত ওই ছাত্রের সনদটি তার নামে নয়। সেটি একই জেলার মাটিরাঙ্গা উপজেলার তৈলাফাং গ্রামের নুর আলম ও নাসিমা আক্তারের পুত্র মো. শাহ আলমের সনদ জালিয়াতি করে তার (মো. আবুবকরসিদ্দিক) নামে বিশ্ববিদ্যালয়ে জমা দেয়া হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত হওয়ার পর ১১ ফেব্রুয়ারি মানিকছড়ি থানা পুলিশ প্রথমে ওই বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র মো. আবুবকর সিদ্দিককে আটক করে এবং তার দেওয়া তথ্যে সনদ উত্তোলনে সহায়তাকারী একই এলাকার প্রতারক মো. ফারুক হোসেনকে (৪০)আটক করেন।

পরে আটক ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে জালিয়াতি ও প্রতারণার ধারায় ফৌজধারী মামলা দায়ের করা হয়েছে।

 

 

 

পূর্বকোণ/পিআর

শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
The Post Viewed By: 106 People

সম্পর্কিত পোস্ট